আজ বৃহস্পতিবার , ৩০শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৬ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

সখিনা! স্বজনদের দাবীমতে উনিই পৃথিবীর বয়স্ক নারী। প্রধানমন্ত্রীর সামনে তরুণীর আর্তনাদ নিরন্ন মানুষের বোবা কান্নার প্রতিধ্বনি: এমরান সালেহ প্রিন্স বীরত্ব আর সাহসিকতার স্বীকৃতি পেলেন এসপি তারিক নালিতাবাড়ীতে বিদেশী মদসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক নকলায় আমির হোসেন বিশ্ব’র টাকা তৈরির ফাঁদ পদ্মা সেতু উদ্ভোধন উপলক্ষে হালুয়াঘাটে আনন্দ র‍্যালী নালিতাবাড়ীতে আগুনে পুড়ে তিন গরুর মৃত্যু নালিতাবাড়ীতে নিখোঁজের ১৬ দিন পর লাশ উদ্ধার স্বামীর নির্যাতনে স্ত্রীর আত্মহত্যা। গ্রেফতার হয়নি স্বামী বাউফলে ডিজিটাল পদ্ধতিতে জনশুমারী ও গৃহগণনার কাজ সম্পন্ন নকলায় সংবাদ কর্মীর উপর হামলা উৎসব বন্ধ করে দূর্দিনে জনগণের পাশে দড়ানঃএমরান সালেহ প্রিন্স কবরস্থানের টাকা আত্মসাৎ,কবরস্থানের উন্নয়নে বাধা প্রদান করায় প্রতিবাদে সংবাদ সন্মেলন পাহাড়ী ঢলে ভোগাই নদীর ভাঙ্গন! ভেঙ্গে গেছে ব্রীজ নালিতাবাড়ীতে প্রাকৃতিক দূর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে ত্রান বিতরন

ওজনে ধান বেশী নেয়ার প্রতিবাদে বিক্ষোভ

প্রকাশিতঃ ১০:২৪ অপরাহ্ণ | মে ২৫, ২০২২ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২৬ বার

নালিতাবাড়ী সংবাদদাতাঃ শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে আড়তদারদের প্রতি মণ ৪০ কেজির স্থলে ৪২ কেজি হিসেবে ধান কেনার প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ও সড়ক অবরোধ করেছেন স্থানীয় কৃষকরা। বুধবার (২৫ মে) দুপুরে পৌর শহরে ওই মিছিল ও সড়ক অবরোধ করেন তারা।

জানা গেছে, উপজেলার বিভিন্ন হাট বাজারসহ পৌর শহরে ধান কেনার সময় ৪০ কেজি মনের স্থলে ৪২ কেজি করে ধান ক্রয় করছিল আড়তদাররা। এমন অভিযোগে মঙ্গলবার (২৪ মে) উপজেলা পরিষদে আড়তদার ও উপজেলা প্রশাসন এক বৈঠকে বসেন। এতে প্রতিমন ধান ৪১ কেজি হিসেবে কেনার সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হয়। কিন্তু বুধবার সকাল হতে সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে ৪২ কেজিতে মণ হিসেবে ধান কিনতে শুরু করেন ব্যবসায়ীরা। এতে ধান বিক্রি করতে আসা কৃষকরা ক্ষুব্ধ হন ও এর প্রতিবাদ জানান। পরে বিক্ষুব্ধ কৃষকরা ৪২ কেজিতে নয় ৪০ কেজি ওজনে ধান কেনার দাবীতে বুধবার দুপুরে একটি মিছিল নিয়ে উপজেলা পরিষদে যায়। এসময় উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা সরকারি কাজে উপজেলার বাইরে থাকায় তাদের না পেয়ে পরিষদের কর্মকর্তাদের বিষয়টি অবগত করে চলে আসেন তারা। একই সাথে তারা আড়াইআনী বাজারে সড়ক অবরোধ করেন ।

উপজেলার ছালুয়াতলা গ্রামের কৃষক আব্দুল কুদ্দুস বলেন, আমি বুধবার সকালে ১০ মন ধান নিয়ে বাজারে বিক্রি করার জন্য আসি। আড়তদারের নিকট ধান বিক্রির জন্য গেলেও তারা ধান কিনছেন না। ব্যবসায়ীরা ২ মনে ৮৪/৮৫ কেজি হিসেবে ধান কিনবে বলে জানায়। যে কারণে আমরা এই আন্দোলন করছি।

Shares