আজ বুধবার , ২৭শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

নালিতাবাড়ীতে শিক্ষক নেতার উপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন নালিতাবাড়ীতে শিক্ষক নেতার উপর সন্ত্রাসী হামলার বিচারের দাবীতে আজ মানববন্ধন হালুয়াঘাটের শিমুলকুচি গ্রামে কামাল’র কুলখানি অনুষ্ঠিত হালুয়াঘাটে বৃদ্ধকে নির্যাতনের ঘটনায় চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ হালুয়াঘাটের ট্রলি উল্টে দুই বন্দর শ্রমিকের মৃত্যু, আহত ৬ মাছ ধরার জালে ঢিল ছোড়ায় খুন হন শিশু শিক্ষার্থী সুমন হালুয়াঘাটে ১ম শ্রেণীর শিক্ষার্থীকে কুপিয়ে খুন এমপি’র কাছে নালিশ করায় বৃদ্ধকে পিটিয়েছে চেয়ারম্যান হালুয়াঘাটে প্রতারিত শত শত কৃষক বাউফলে মাছের পোনা অবমুক্তকরণ বাউফল উপজেলা ও পৌর সেচ্ছাসেবক দলের আহব্বায়ক কমিটি ঘোষণা বাউফলে ইউএনও’র বিদায়ী সংবর্ধনা নালিতাবাড়ীতে জেলা শিক্ষা অফিসারের বিদ্যালয় পরিদর্শন বাউফলে বিএনপি’র ৪৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত বাউফলে ছেলের বিচার চেয়ে বাবা মায়ের সাংবাদিক সম্মেলন

জেরুজালেমে নগ্ন বেলজিয়াম সুন্দরী মারিসা

প্রকাশিতঃ ১০:৪২ অপরাহ্ণ | জুন ২৮, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২,৯৮৮ বার

সীমান্তবার্তা ডেস্কঃ পবিত্র শহর জেরুজালেমে বেলজিয়ামের সুন্দরী মডেল একি কান্ড ঘটালেন! তিনি সম্পূর্ণ বিবস্ত্র হয়ে জেরুজালেমের ওয়েইলিং ওয়ালে ছবি তুলেছেন। এ সময় তার শরীরের পোশাক তো দূরের কথা কোনো সুতা বলতে কিছু ছিল না। তাকে দেখা গেছে ওই ওয়েইলিং ওয়ালের ছাদে একটি ইজি চেয়ারে এ অবস্থায় চিৎ হয়ে শুয়ে আছেন। আর সেই ছবি পোস্ট করা হয়েছে সামাজিক মিডিয়ায়। এরপরই চারদিকে শোরগোল পড়ে গেছে। এক বছর আগে তিনি একই রকম কাজ করেছিলেন মিশরে।

সেখানেও একটি সমাধিক্ষেত্রে একেবারে বিবস্ত্র হয়ে ছবি তুলেছিলেন। সে অপরাধে তাকে জেল দেয়া হয়েছিল। বেলজিয়ামের ওই মডেলের নাম মারিসা পাপেন। সম্প্রতি তিনি ইসরাইল সফরে যান। সেখানে গিয়ে ওই কান্ড ঘটিয়ে দেন। এ বিষয়ে ব্যাপক সমালোচনা হওয়ার পর তিনি বলেছেন, আমার কাছে তাৎক্ষণিকভাবে মনে হয়েছে যদি আমি ওয়েইলিং ওয়ালের সামনে বা কাছে থেকে একটি ছবি ধারণ করতে পারি তাহলেই আমার এই সফরটি স্বার্থক হবে। এ নিয়ে আমি চমৎকার একজন পুরুষ বন্ধুর সঙ্গে কথা বলেছি। তিনি একজন মুসলিম। তিনি আমাদেরকে তার বাড়িতে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন। আমাদেরকে কফি ও চা পান করিয়েছেন। পাপেন ও তার ফটোগ্রাফার ম্যাথিয়াস ল্যামবেচটের কাছে জানতে চাওয়া হয়েছিল তারা কি ওই ছাদে শুধু এই ছবি তুলতেই গিয়েছিলেন। জবাবে তিনি গর্বের সঙ্গে তা স্বীকার করেন। এর জবাবে পাপেন বলেন, এখনও আমি বলি, সেখানে গিয়ে আমি ছবি তোলার জন্য সবটা পোশাক খুলে ফেলতে চেয়েছি। কিন্তু আমার ফটোগ্রাফার তাতে সায় দিচ্ছিলেন না। তারপরও আমি তার কথা শুনি নি। উল্লেখ্য, মিশরের লুক্সোর শহরের কাছে কারনাকে একটি সমাধির সামনে একেবারে নগ্ন হয়ে একই রকম ফটো তোলার কারণে গত বছর সেখানে গ্রেপ্তার করে জেল খেটেছেন পাপেন।

এ কথা আগেই বলা হয়েছে। তবে এবার তিনি বেছে নিয়েছেন জেরুজালেমের পবিত্র স্থান ওয়েস্টার্ন ওয়াল বা ওয়েইলিং ওয়ালকে। ইহুদিরা সেখানে তাদের উপাসনালয় সম্প্রসারণ করছে এবং স্থানটি তাদের কাছে খুবই পবিত্র। সেখানে গিয়ে তারা প্রার্থনা করেন। তবে স্থানটি মুসলিম, ইহুদি ও খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের কাছে পবিত্র হিসেবে দেখা হয়। তবে মারিসা পাপেন নিজেকে মুক্তমনের বলে দাবি করেন। তাকে ইসরাইলের ভক্তরা আবার সফরে যেতে বলেছেন বলে তিনি গর্বিত। কিন্তু তিনি যা করেছেন তা নিয়ে ক্ষোভ ঝরছে অনলাইনে। একজন লিখেছেন, তিনি সীমা অতিক্রম করেছেন। আপনি কে যে এখানে এসে এভাবে পোজ দিতে পারেন? আমি আশা করি সৃষ্টিকর্তা আপনার বিচার করবেন। জবাবে মারিসা পাপেন বলেছেন, কিভাবে মানুষের ত্বক, একটি নগ্ন শরীর অন্যদের ক্ষুব্ধ করতে পারে?

Shares