আজ শনিবার , ১৩ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ২৯শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

নালিতাবাড়ীর মাদক সম্রাট পিচ্চি খোকন আটক শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে বিশ্ব হাতি দিবস পালিত নালিতাবাড়ীতে কৃষি মেলার উদ্ভোধন ইকোপার্কে বেড়াতে গিয়ে খালু কর্তৃক ভাগ্নী ধর্ষণের শিকার শ্রীবর্দীতে পানিতে ডুবে প্রতিবন্ধী শিশুর মৃত্যু মেয়ের খুনের বিচার চাইলেন বাবা বাউফলে ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিল নালিতাবাড়ীতে বন্য হাতির আক্রমণে কৃষকের মৃত্যু দাশপাড়া ইউনিয়ন বিএনপি’র সভাপতি আজম, সম্পাদক মজিবর নালিতাবাড়ীর নৃতাত্ত্বিক জনগোষ্ঠীর নিখোঁজ শিক্ষার্থী উদ্ধার নালিতাবাড়ীতে গণহত্যা দিবস পালিত দলিল প্রতি অতিরিক্ত ফি ১০ হাজার টাকা। প্রতিবাদে ধোবাউড়ায় সংবাদ সম্মেলন রামচন্দ্রকুড়ায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর প্রচারণায় বাঁধা: সংঘর্ষ, গাড়ি ভাংচুর, আহত হালুয়াঘাটে গাছের সাথে শত্রুতা হালুয়াঘাটে আরও ২৯ জন ভূমিহীনকে জমিসহ ঘর প্রদান

ঘুমের ইনজেকশন দিয়ে রোগীকে ধর্ষণ

প্রকাশিতঃ ৪:৪৮ অপরাহ্ণ | জুন ১৭, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৩১৫ বার

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ ভারতের গুজরাটে এক নারী রোগীকে ঘুমের ইনজেকশন দিয়ে ধর্ষণ করার অভিযোগে পলাতক এক চিকিৎসককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

ভাদোদারা জেলার নাদেসারি এলাকার আনগাধ গ্রামে রোগিনীকে নিজের ক্লিনিকের মধ্যেই ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে ওই চিকিৎসকের বিরুদ্ধে।

নাদেসারি পুলিশ সূত্রে খবর, অভিযুক্ত চিকিৎসকের নাম প্রতীক জোশি। শনিবার পঞ্চমহল এলাকায় এক আত্মীয়ের বাড়ি থেকে দুপুরে তাকে আটক করে পুলিশ।

তদন্তকারীরা জানিয়েছেন, গত ১১ জুন ওই নারী প্রতীক জোশির বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন।

ওই নারীর দাবি, ক্লিনিকে ঘুমের ইনজেকশন দিয়ে তাকে ধর্ষণ করেন ওই চিকিৎসক। সেই সময় ওই ক্লিনিকের কম্পাউন্ডার তার ফোনে ভিডিও করছিলেন বলে দাবি করেন তিনি। অভিযোগ পেয়ে সেদিন রাতেই দিলীপ গোহিল নামে ওই কম্পাউন্ডারকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

যদিও ঘটনার দিন থেকেই পলাতক ছিলেন অভিযুক্ত চিকিৎসক। তার বিরুদ্ধে ৩৭৬ ধারায় ধর্ষণসহ একাধিক ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। খুব শিগগির তাকে আদালতে পেশ করা হবে।

পুলিশি জেরায় ওই চিকিৎসকের দাবি, ধর্ষণের ঘটনাটি তিন মাস আগেকার। গ্রেপ্তারকৃত কম্পাউন্ডার ও তার দুই সঙ্গী মিলে ওই চিকিৎসককে ব্ল্যাকমেল করা শুরু করেছিল। গত ২২ ফেব্রুয়ারি তাকে অপহরণ করে ৫০ লাখ টাকা দাবি করা হয়।

পুলিশ আলাদা করে অপহরণ ও ব্ল্যাকমেলের ঘটনারও তদন্ত শুরু করেছে। যদিও আরও দুই অভিযুক্ত মহেন্দ্র ও বিক্রম গোহিলকে এখনও ধরতে পারেননি তদন্তকারীরা।

Shares