আজ শুক্রবার , ৩রা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

রামচন্দ্রকুড়া উচ্চ বিদ্যালয়ে এস.এস.সি পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা রামচন্দ্রকুড়া উচ্চ বিদ্যালয়ে এস.এস.সি পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা রামচন্দ্রকুড়া উচ্চ বিদ্যালয়ে এস.এস.সি পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা বাউফলে জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস পালিত হালুয়াঘাটে ঐতিহাসিক তেলিখালী যুদ্ধ দিবস উদযাপন বাউফলে যুবদলের ৪৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পলিত নালিতাবাড়ীতে শিক্ষক নেতার উপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন নালিতাবাড়ীতে শিক্ষক নেতার উপর সন্ত্রাসী হামলার বিচারের দাবীতে আজ মানববন্ধন হালুয়াঘাটের শিমুলকুচি গ্রামে কামাল’র কুলখানি অনুষ্ঠিত হালুয়াঘাটে বৃদ্ধকে নির্যাতনের ঘটনায় চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ হালুয়াঘাটের ট্রলি উল্টে দুই বন্দর শ্রমিকের মৃত্যু, আহত ৬ মাছ ধরার জালে ঢিল ছোড়ায় খুন হন শিশু শিক্ষার্থী সুমন হালুয়াঘাটে ১ম শ্রেণীর শিক্ষার্থীকে কুপিয়ে খুন এমপি’র কাছে নালিশ করায় বৃদ্ধকে পিটিয়েছে চেয়ারম্যান হালুয়াঘাটে প্রতারিত শত শত কৃষক

গর্ভের সন্তানকে বিক্রি করে স্মার্ট ফোন কিনলেন মা!

প্রকাশিতঃ ৩:৫৯ অপরাহ্ণ | আগস্ট ২৮, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৪১০ বার

অনলাইন ডেস্কঃ এমন মা হয়তো পৃথিবী খুব বিরল। যিনি সামান্য একটি স্মার্টফোনের জন্য নিজের গর্ভের সন্তানকে বিক্রি করতে পারেন। এমনটাই ঘটেছে নাইজেরিয়ায়। অভিযুক্ত মায়ের নাম মিরাকল জনসন (২৩)। স্থানীয় পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করেছে বলে জানা গেছে।

পুলিশ জানিয়েছে, গ্রেপ্তারের পর সন্তানকে বিক্রি করায় অনুতাপ প্রকাশ করেছেন মিরাকল জনসন।

জানা গেছে, ২ লাখ নাইজেরিয়ান মুদ্রা নাইরার বিনিময়ে শিশুসন্তানকে একটি অনাথ আশ্রমের কাছে বিক্রি করেন মা। পুলিশ সুপার জনসন কুকোমে এই ঘটনাকে গুরুতর অপরাধ বলে অভিহিত করেছেন।

এদিকে, জনসন দাবি করেছেন, সন্তানকে বিক্রি করার জন্য তাকে প্ররোচিত করা হয়। তার এক বন্ধু ওই অনাথ আশ্রমটি চালায়। ওই বন্ধু জানায়, সন্তানকে বিক্রি করে ওই টাকায় স্বামীর ব্যবসা শুরুর কাজে লাগাতে কিংবা নিজের জন্য দামী স্মার্টফোন কিনতে।

জনসন জানিয়েছেন, হতাশা থেকে তিনি সন্তানকে বিক্রি করেছেন। তার স্বামী কাজ করে না, স্ত্রী ও সন্তানদের ভরণ পোষণে ব্যর্থ। এমনকি তিনি স্মার্টফোনও কিনতে চাননি। কিন্তু জনসনের স্বামী জানান, তিনি জনসনকে সন্তান বিক্রি করতে বাধা দিয়েছিলেন। কিন্তু জনসন সে কথা শোনেনি।

Shares