আজ শুক্রবার , ২৭শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৩ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

হালুয়াঘাটে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু ওজনে ধান বেশী নেয়ার প্রতিবাদে বিক্ষোভ নালিতাবাড়ীতে মাংস বিক্রেতাদের জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত নালিতাবাড়ীতে অগ্নিকাণ্ডে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসহ বসতঘর পুড়ে ক্ষয়ক্ষতি “মুক্তিযুদ্ধে হালুয়াঘাট” গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন ও প্রকাশনা অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত প্রকল্পের পাওনা টাকা দাবী: ইউপি চেয়ারম্যানের নির্দেশে হামলার অভিযোগ “মুক্তিযুদ্ধে হালুয়াঘাট” গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন ও প্রকাশনা অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত নালিতাবাড়ীর মাদক ব‍্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব হালুয়াঘাটে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত শেরপুরে স্বামী পরিত্যক্তা তরুণীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ: গ্রেফতার এক নালিতাবাড়ীতে বঙ্গবন্ধু জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট উদ্বোধন নালিতাবাড়ীতে র‍্যাবের হাতে বিদেশী মদসহ যূবক গ্রেফতার তিনানী বাজার থেকে সয়াবিন তেল জব্ধ,লাখ টাকা জরিমানা নালিতাবাড়ী প্রতিবন্ধী শিশু ধর্ষণের অভিযোগে একজন আটক নালিতাবাড়ীতে গতি রোধ করে গরু ব্যবসায়ীর উপর বিজিবি’র গুলি, আহত তিন

কুমিল্লার হাইওয়ে হোটেল নূরজাহানে নোংরা খাবার! ৫ লাখ টাকা জরিমানা

প্রকাশিতঃ ৯:৫৬ অপরাহ্ণ | ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২০ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৩৩৯ বার

]অনলাইন ডেস্কঃ অপরিষ্কার ও নোংরা রান্নাঘরের কারণে কুমিল্লা হাইওয়েতে অবস্থিত হোটেল নূরজাহানকে ৫ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। একই কারণে আরও দুটি হোটেলকে জরিমানা করা হয়।

বাকি হোটেল দুটি হলো- তাজমহল এবং টাইমস স্কয়ার। মঙ্গলবার নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের সদস্যরা অ’ভিযানে গিয়ে হোটেল তিনটির রান্নাঘরে নোংরা পরিবেশ দেখতে পান।
নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের সদস্য মাহবুব কবির মিলন বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি তার ফেরিফায়েড ফেসবুক পেজে এ বিষয়ে একটি পোস্ট দিয়েছেন।
পোস্টে তিনি লিখেছেন, ‘আজ কুমিল্লা হাইওয়ে হোটেলে নিরাপদ খাদ্য কর্তৃপক্ষের দুজন ম্যাজিস্ট্রেট মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন।
মা’রাত্মক অপরিষ্কার ও অত্যন্ত নোংরা কিচেনের কারণে হোটেল নূরজাহানকে ৫ লাখ টাকা জরিমানা, তাজমহলকে ২ লাখ এবং টাইমস স্কয়ারকে ৩ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।’
‘সময় বেঁধে দেয়া হয়েছে। এর মধ্যে তারা কিচেনের পরিবেশ উন্নত না করলে চরম ব্যবস্থা নেয়া হবে।’ খাবারের দামের বিষয়ে তিনি লেখেন, ‘দামের বিষয়ে আমাদের করণীয় কিছু নেই।

সর্বোচ্চ খুচরা মূল্যের (এমআরপি) চেয়ে বেশি দাম রাখা হলে ভোক্তা অধিকারে অ’ভিযোগ করতে হবে মেমো বা রশিদ দিয়ে। মূল্যতালিকা দেয়া থাকলে কারও করার কিছু নেই। ধরে নেয়া হয় ভোক্তা তা জেনেই খেয়েছেন।’

Shares