আজ রবিবার , ২৮শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

ব্রাহ্মণবাড়িয়াতে পৃথক স্থানে ট্রেনে কাটা পড়ে ২জন নিহত এমপি’র পক্ষে হালুয়াঘাট ধান্য ব্যবসায়ী সমিতির কম্বল বিতরণ ধোবাউড়ায় ট্রাক-হোন্ডা সংঘর্ষে নিহত-২, চালক ও হেলপার আটক বাউফলে ইউপি চেয়ারম্যানের ওপর হামলাকারীদের গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবি হালুয়াঘাটে ঝরে পড়া শিশুরা পাবে শিক্ষার সুযোগ। আসছে শিক্ষক নিয়োগও হালুয়াঘাটে স্বামীর আত্নহত্যা দেখে স্ত্রীও বিষ খায়! দুজনেরই মৃত্যু হালুয়াঘাটে স্বামী-স্ত্রীর আত্নহত্যা রাহেলা হযরত মডেল স্কুলে প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত ত্রিশাল অনলাইন প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে ভাষা শহীদদের স্মরণে শ্রদ্ধাঞ্জলি ভাষা শহীদদের প্রতি কংশ টিভির পরিবার ও গণমাধ্যম কর্মীদের শ্রদ্ধাঞ্জলী ফুটবল ফাইনাল টুর্নামেন্টে বিজয়ী মধুপুর একাদশ স্পোটিং ক্লাব ২৮ ফেব্রুয়ারী পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়লো ময়মনসিংহ জেলার শ্রেষ্ট উপজেলা নির্বাহী অফিসার ত্রিশালের মোস্তাফিজুর রহমান হালুয়াঘাটে পিকনিকের বাস উল্টে আহত-৮ ময়মনসিংহের ত্রিশালে করোনা টিকাদান কর্মসূচির উদ্বোধন

এক সড়ক দুর্ঘটনার কারনে বরখাস্ত হলেন ৩ মন্ত্রী!

প্রকাশিতঃ ৮:২৭ অপরাহ্ণ | আগস্ট ৩১, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২৮৩ বার

অনলাইন ডেস্কঃ মাত্র একটি সড়ক দুর্ঘটনার প্রেক্ষিতে বরখাস্ত হয়েছেন বুলগেরিয়ার তিন জন প্রভাবশালী মন্ত্রী। শুক্রবার দেশটির উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় ভোগ শহরে দুর্ঘটনার শিকার হয় একটি বাস। এতে প্রায় ১৭ ব্যক্তি নিহত হন। ভয়াবহ এ দুর্ঘনায় সড়ক যোগাযোগ সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীদের ওপর বেজায় চটেছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী বয়কো বরিসভ। এর প্রেক্ষিতে সড়ক মন্ত্রী ইভলো মস্কোভস্কি, আঞ্চলিক উন্নয়ন মন্ত্রী নিকোলে নানকভ ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ভ্যালেনটিন রাদেভকে একসঙ্গে বরখাস্ত করেন তিনি। কারণ হিসেবে বলেন, রাজনীতিবিদদের সড়ক দুর্ঘটনার দায় নেয়া উচিত।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, শুক্রবারের দুর্ঘটনায় ব্যাপক প্রাণহানি নিয়ে পূর্ব ইউরোপের দেশটিতে নিন্দার ঝড় বইছে। নড়েচড়ে বসেছে সংশ্লিষ্ট সব পক্ষ। প্রধানমন্ত্রী তার মন্ত্রীসভার তিনজন মন্ত্রীকে বরখাস্ত করেছেন। বরখাস্তকৃত মন্ত্রীরাও দুর্ঘটনার দায় স্বীকার করে দু:খ প্রকাশ করেছেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ভ্যালেনটিন রাদেভ বলেন, আমরা দুর্ঘটনার রাজনৈতিক দায় স্বীকার করে নিয়েছি। এজন্য আমরা পদ ছেড়ে দিচ্ছি। অবশ্যই আমরা এ ধরণের দুর্ঘটনা প্রতিরোধের মতো ব্যবস্থা করতে পারি নি। রাদেভ যখন সাংবাদিকদের এসব কথা বলছিলেন, বরখাস্তকৃত আরেক মন্ত্রী নিকোলে নানকভও তার সঙ্গে ছিলেন। তিনি রাদেভের বক্তব্যকে সমর্থন করেন।

উল্লেখ্য, গত শনিবারেও এ অঞ্চলে একটি বাস দুর্ঘটনার শিকার হয়। বাসটি পাশ্ববর্তী খাদে পড়ে গেলে প্রায় দুই ডজন মানুষ আহত হন। এ দুর্ঘটনার প্রতিবাদে শনিবার থেকে প্রতিদিনই রাজপথে বিক্ষোভ দেখিয়ে আসছে বুলগেরিয়ার মানুষ। বিক্ষোভকারীদের দাবি, কর্তৃপক্ষ সড়ক মেরামতের বিষয়টি যথাযথ আমলে নেয়নি।

Shares