আজ মঙ্গলবার , ২৪শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

কোভিড-১৯ প্রতিরোধে জনসচেতনতা বৃদ্ধিতে মেয়রের আহব্বান বাউফলে তারেক রহমানের জন্মবার্ষিকী পালিত বাউফলে প্রায়তঃ শিক্ষকের রুহের মাগফিরাত কামনায় দোয়া-মোনাজাত আত্মহত্যার পরও সূদের টাকার জন্য ফোন! ত্রিশালে সড়ক দূরঘটনায় একজন নিহত চার জন আহত ত্রিশালে যুবলীগের ৪৮তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত আমতলীতে মাদ্রাসা মাঠে ধান চাষ বরগুনায় ১০ দোকান পুড়ে ছাই হৃদয় হত্যাকাণ্ডে জড়িত প্রত্যেকের ফাঁসি চান পরিবার আইপিএলে ,নিঃস্ব হচ্ছে অনেক পরিবার ত্রিশাল অনলাইন প্রেসক্লাবের উদ্যোগে শাহ্ আহসান হাবীব বাবুর জন্ম দিন পালন বরগুনায় সেরা সম্পাদককে সংবর্ধনা বরগুনা বেতাগীর আলোচিত বজলু হত্যা মামলার ২ নম্বর আসামি আটক ত্রিশালে শহীদ বীরমুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রহমান সড়ক উদ্বোধন ত্রিশালে বিভাগীয় কমিশনারের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

ময়মনসিংহে পুলিশ পরিচয়ে কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষণ! ভুঁয়া পুলিশ আটক

প্রকাশিতঃ ১২:৫৪ অপরাহ্ণ | জুন ০৯, ২০২০ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ১,১৮০ বার

স্টাফ রিপোর্টারঃ পুলিশের ভূয়া এসআই পরিচয়ে কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষণ ও গোপনে ভিডিও করে রাখার অভিযোগে জমশেদ আলী শাকিব নামে পুলিশের এক ভূয়া এসআইকে গ্রেফতার করেছে মুক্তাগাছা থানা পুলিশ। তার বাড়ি মুক্তাগাছা উপজেলার নটাকুড়ি গ্রামে। এ ঘটনায় রোববার রাতে তার নামে মুক্তাগাছা থানায় ধর্ষণ ও পর্নোগ্রাফি আইনে মামলা হয়েছে। পরে ওই রাতেই জমশেদ আলী শাকিব ও তার স্ত্রী আমেনা খাতুনকে গ্রেফতার করেছে মুক্তাগাছা থানা পুলিশ।
অনার্স ৩য় বর্ষের এক ছাত্রীর সাথে রং নাম্বারে দুইমাস আগে যোগাযোগ হয় মুক্তাগাছার নটাকুড়ি গ্রামের আব্দুল হালিমের ছেলে জমশেদ আলী শাকিবের। ওই সময় শাকিব নিজেকে পুলিশের এসআই ও অবিবাহিত হিসেবে পরিচয় দেয়। এর পর থেকে তাদের মধ্যে মোবাইলে ফোনে নিয়মিত যোগাযোগ হয়। এ সুযোগে কলেজ ছাত্রীর ছোট ভাইকে তথ্য মন্ত্রণালয়ে চাকুরির দেওয়ার কথা জানায় জমশেদ আলী শাকিব।
তার কথা মত রমজান মাসের শুরুতে ২৯ এপ্রিল ছোট ভাইয়ের কাগজপত্র নিয়ে মুক্তাগাছায় দেখা করতে আসে ওই কলেজ ছাত্রী। এ দিন তাকে মুক্তাগাছা শহরের মনিরামবাড়ি এলাকার একটি ভাড়া বাসায় জোরপূর্বক নিয়ে যায় পুলিশের ভূয়া এসআই নামধারী জমশেদ আলী শাকিব। ওই বাসায় মেয়েটিকে আটকে রেখে ওইদিন রাতে দুই দফা ধর্ষণ করে শাকিব। এ সময় গোপনে ধর্ষণের ভিডিও ধারণ করে রাখে সে। পরদিন সকালে ভিডিও চিত্র সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছেড়ে দেওয়ার ভয়ভীতি দেখিয়ে মেয়েটিকে বাসা থেকে বের করে দেয়। পরবর্তীতে বিভিন্ন সময় ভিডিও চিত্র ফাঁস করে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে মেয়ের পরিবারের কাছে মোটা অংকের টাকা দাবি করে পুলিশের ওই ভূয়া এসআই। এ ঘটনায় কোনো উপায় না দেখে রোববার রাতে জমশেদ আলী শাকিব ও তার স্ত্রী আমেনা খাতুনের নামে মুক্তাগাছা থানায় মামলা করেন তার পরিবার।
ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে মুক্তাগাছা থানার ওসি বিপ্লব কুমার বিশ্বাস বলেন, ধর্ষণ ও গোপনে চিত্র ধারণ করে রাখার অভিযোগে পুলিশের ভূয়া এসআই নামধারী জমশেদ আলী শাকিব ও তার স্ত্রী আমেনা খাতুনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও পর্ণোগ্রাফী আইনে মামলা হয়েছে।

Shares