আজ মঙ্গলবার , ৪ঠা অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৯শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

নালিতাবাড়ীর সনাতন ধর্মাবলম্বীদের মাঝে শারদীয় উপহার বিতরণ হালুয়াঘাটে বোনের বিরুদ্ধে ছোট বোনের ছয় মামলা। প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ হালুয়াঘাটে ভারতীয় মদসহ দুই মাদক কারবারী আটক মানবিক সাহায্যই বাঁচাতে পারে ক্যন্সারে আক্রান্ত আমেনাকে তারাই নদীতে ব্রীজ হলে ঘুচবে ১০ গ্রামের মানুষের দুঃখ নালিতাবাড়ীতে মাদ্রাসা অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে অনিয়ম দূর্ণীতির অভিযোগ দলীয় পদ হারালেন শেরপুর জেলা পরিষদের প্রশাসক রুমান। হালুয়াঘাটে বিদেশী মদসহ আটক-২ ভেজাল কীটনাশক সরবরাহ! জরিমানা হালুয়াঘাট সীমান্তে হাতি তাড়াতে মশাল হাতে বিএনপি নেতা প্রিন্স হালুয়াঘাটে বিএনপি’র বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ গ্রাম্য শালিশ করতে গিয়ে প্রতিহিংসার বলি ইউপি চেয়ারম্যান: সংবাদ সম্মেলন। গারো পাহাড়ে পর্যটন মোটেল তৈরি করা হবে সীমান্তে হাতির আক্রমণ থামছেইনা সংরক্ষিত নারী আসন-২ এর একক প্রার্থী রুমানুল ফেরদৌসী রুমা

ইকোপার্কে বেড়াতে গিয়ে খালু কর্তৃক ভাগ্নী ধর্ষণের শিকার

প্রকাশিতঃ ৮:১৬ অপরাহ্ণ | আগস্ট ০৭, ২০২২ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৩৯৫ বার

মোঃ দৌলত হোসেন নালিতাবাড়ী শেরপুরঃ
শেরপুরের নালিতাবাড়ি ইকোপার্কে বেড়াতে নিয়ে ভাগ্নিকে ধর্ষনের অভিযোগ উঠেছে আব্দুর রশিদ (৪২) নামে এক লম্পট খালুর বিরুদ্ধে। আব্দুর রশিদ শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে উপজেলার নলকুড়া ইউনিয়নের পুর্বজারুলতলা গ্রামের মোঃ হুরমুজ আলীর ছেলে। ঘটনাটি ঘটে ২ আগষ্ট মঙ্গলবার রাতে। স্থানীয়রা জানান, আব্দুর রশিদের শ্যালিকার ঘরের সদ্য বিবাহিত (১৭) বছর বয়সী এক যুবতী নিজ বাড়ি জামালপুর সদর উপজেলার চান্দাপাড়া থেকে ঘটনার দুইদিন পুর্বে তার খালু আব্দুর রশিদের বাড়িতে বেড়াতে আসে। আব্দুর রশিদ ওই যুবতীর শুধু আপন খালুই নয়, তার বিয়েতে উকিল বাবাও হয়েছেন। ঘটনার দিন মঙ্গলবার বিকালে আব্দুর রশিদ ওই যুবতী কন্যাকে পার্শ্ববর্তী নালিতাবাড়ী উপজেলার মধুটিলা ইকোপার্কে বেড়াতে নিয়ে যায়। সেখানে নানা অজুহাতে রাত পর্যন্ত রাখা হয় ওই যুবতীকে। রাতে আব্দর রশিদ ওই যুবতীকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এসময় মধুটিলা ইকোপার্ক এলাকার সাবেক ইউপি সদস্য মোঃ ফারুক মিয়ার নেতৃত্বে স্থানীয়রা তাদের আটক করে বেধে রেখে। ইউপি সদস্য ফারুক মিয়া জানান, পরে খবর পেয়ে জারুলতলা গ্রামের ইউপি সদস্য মোঃ মমিন মিয়া, জারুলতলা ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি মোঃ ছোরহাব আলী ওইগ্রামের বিল্লাল হোসেন দরবেশ আলীসহ অন্যান্যরা ঘটনাস্থলে এসে সুষ্টু বিচারের আশ্বাস দিয়ে আটককৃত আব্দুর রশিদ ও যুবতীকে ছাড়িয়ে নিয়ে আসে। কিন্তু পরে এঘটনার আর কোন বিচার হয়নি। অভিযোগ রয়েছে ইউপি সদস্য মমিন মিয়ার নেতৃত্বে স্থানীয় একটি কোচক্রি মহল মোটা অংকের অর্থের বিনিময়ে ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার পাঁয়তারা করে আসছেন। এ বিষয়কে কেন্দ্র করে এলাকাবাসীর মধ্যে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। এলাকাবাসী এবিষয়ে বিচারের দাবি জানিয়েছেন। ইতিমধ্যেই আব্দুর রশিদের স্ত্রী লিপি আক্তার ওই যুবতীকে অন্যত্র লুকিয়ে রেখেছেন বলে জানা গেছে। ওই ধর্ষিতা যুবতীর বিষয়ে তার খালা লিপি আক্তারের কাছে জানাতে চাওয়া হলে তিনি বলেন ওই যুবতী আমার ভাগ্নি হয়। তাকে কোথায় রাখা হয়েছে তা বলা যাবে না। এ বিষয়ে আব্দুর রশিদের কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন ধর্ষণের অভিযোগ সত্য নয়। সন্দেহ করে আমাকে বেধে রাখা হয়েছিল। ওই এলাকান ইউপি সদস্য মমিন মিয়া , এবিষয়ে লেখা লেখি না করতে অনুরোধ জানান। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ঝিনাইগাতী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনিরুল আলম ভূইয়া বলেন ঘটনাটি ঘটেছে নালিতাবাড়ী উপজেলার মধুটিলা ইকোপার্কে। তাছাড়া কেউ অভিযোগ না করায় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া সম্ভব হয়নি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Shares