আজ রবিবার , ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

বাউফল উপজেলা ও পৌর সেচ্ছাসেবক দলের আহব্বায়ক কমিটি ঘোষণা বাউফলে ইউএনও’র বিদায়ী সংবর্ধনা নালিতাবাড়ীতে জেলা শিক্ষা অফিসারের বিদ্যালয় পরিদর্শন বাউফলে বিএনপি’র ৪৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত বাউফলে ছেলের বিচার চেয়ে বাবা মায়ের সাংবাদিক সম্মেলন বাউফলে জাতীয় মৎস সপ্তাহ শুরু হালুয়াঘাটে বজ্রপাতে মৃত্যু! বাবার লাশের পাশে দেড় বছরের শিশু ‘নুসাইবা’ হালুয়াঘাটে নির্মাণের বছরেই বক্স কালভার্ট ধ্বস! বাউফলে বিএনপি’র চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া-মোনাজাত ভিক্ষের টাকা গণনা করছিলো ভিক্ষুক। ইমাম বাসের চাপায় মৃত্যু ঐ ভিক্ষুকের শোক দিবসে হালুয়াঘাটে বিজিবি’র ত্রাণ বিতরণ বাউফলে সফিউল বারী বাবু’র মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া-মোনাজাত করোনা টেস্ট করাতে অনিহা হালুয়াঘাটে করোনায় আক্তান্ত হয়ে ৯৬ বছরের বৃদ্ধের মৃত্যু। মোট মৃত্যু-৭ হালুয়াঘাট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে বিএনপি নেতা রুবেল’র অক্সিজেন সিলিন্ডার ও চিকিৎসা সামগ্রী প্রদান

হালুয়াঘাটে বিএসএফ’র গুলিতে নিহতের নেপথ্যে গরু পাচারের অভিযোগ

প্রকাশিতঃ ৪:০৫ অপরাহ্ণ | ডিসেম্বর ২৩, ২০২০ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৭৬ বার

ওমর ফারুক সুমনঃ ময়মনসিংহের হালুয়াঘাট উপজেলার গোবরাকুড়া সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ’র গুলিতে মো. খায়রুল ইসলাম (৪৮) নামে এক ব্যক্তি নিহতের অভিযোগ উঠেছে। মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে গোবড়াকুড়া সীমান্তে ১১২৪-৫-এস নং পিলারের নিকট এ ঘটনাটি ঘটে। নিহতের পরিবারের দাবী, নিজের গরু সীমানার কাছ থেকে আনতে গেলে তাকে লক্ষ্য করে গুলি চালায় বিএসএফ। পরে ঘটনাস্থল থেকে গুরুতর আহতবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। নিহতের মেয়ে খাদিজা আক্তার (২২) বলেন, রাত আটটার দিকে নিজের গোহাল ঘর থেকে গরু বের হয়ে সীমানার কাছে চলে যায়। সেখান থেকে গরু আনতে গেলে খাইরুল ইসলামকে লক্ষ্য করে বিএসএফ গুলি চালায়। খাইরুলের বড় ভাই কাদির (৬৫) বলেন, রাত আটটার সময় বাংলাদেশ ভারতের গোবড়াকুড়া সীমানায় গুলির শব্দ শুনতে পান। বিএসএফ’র গুলিতে নিহত হয়েছেন তার ভাই খাইরুল এমন দাবী তার। তবে এদিকে স্থানীয়দের দাবী, নিহত খাইরুল ইন্ডিয়া থেকে গরু পাচার চক্রের সাথে জড়িত। মূলত গরু পাচার করতেই সীমানা অতিক্রম করতে চেয়েছিলেন। বিএসএফ’র গুলি খেয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় দৌড়ে সীমানা পার হয়ে গোপনে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা নেয়ার পথে পথিমধ্যে মারা যান তিনি। সরেজমিনে গিয়ে সীমানা থেকে বিভিন্ন পয়েন্টে রক্তের উপস্থিতি লক্ষ্য করা যায়। স্থানীয় ও বিজিবিরা জানান, গুলিবিদ্ধবস্থায় আত্নরক্ষার্থে দৌড়ে পালানোর চেষ্টাকালে রক্তের এ ছাপ পরতে পারে। এ ঘটনায় বিজিবি’র পক্ষ থেকে নিহতের কারন আনুষ্ঠানিকভাবে জানানো হয়নি। বিএসএফ’র গুলিতে নিহত হতে পারে প্রাথমিক এমনটা জানিয়ে বিজিবি’র ৩৯ ব্যাটালিয়নের সিইও ল্যাফট্যানেন্ট কর্ণেল তৌফিকুর রহমান বলেন, তদন্ত চলছে। নিহতের প্রকৃত কারন জানার চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। ###

Shares