আজ রবিবার , ৭ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২২শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

হালুয়াঘাটে যথাযোগ্য মর্যাদায় ৭ই মার্চ উদযাপন হালুয়াঘাটের মামুন বাফুফে’র ক্যাপ্টেন নির্বাচিত হওয়ায় সংবর্ধনা ব্রাহ্মণবাড়িয়াতে পৃথক স্থানে ট্রেনে কাটা পড়ে ২জন নিহত এমপি’র পক্ষে হালুয়াঘাট ধান্য ব্যবসায়ী সমিতির কম্বল বিতরণ ধোবাউড়ায় ট্রাক-হোন্ডা সংঘর্ষে নিহত-২, চালক ও হেলপার আটক বাউফলে ইউপি চেয়ারম্যানের ওপর হামলাকারীদের গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবি হালুয়াঘাটে ঝরে পড়া শিশুরা পাবে শিক্ষার সুযোগ। আসছে শিক্ষক নিয়োগও হালুয়াঘাটে স্বামীর আত্নহত্যা দেখে স্ত্রীও বিষ খায়! দুজনেরই মৃত্যু হালুয়াঘাটে স্বামী-স্ত্রীর আত্নহত্যা রাহেলা হযরত মডেল স্কুলে প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত ত্রিশাল অনলাইন প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে ভাষা শহীদদের স্মরণে শ্রদ্ধাঞ্জলি ভাষা শহীদদের প্রতি কংশ টিভির পরিবার ও গণমাধ্যম কর্মীদের শ্রদ্ধাঞ্জলী ফুটবল ফাইনাল টুর্নামেন্টে বিজয়ী মধুপুর একাদশ স্পোটিং ক্লাব ২৮ ফেব্রুয়ারী পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়লো ময়মনসিংহ জেলার শ্রেষ্ট উপজেলা নির্বাহী অফিসার ত্রিশালের মোস্তাফিজুর রহমান

চুয়াডাঙ্গায় ছেলে হত্যার বিচার দাবিতে বাবার সংবাদ সম্মেলন

প্রকাশিতঃ ৩:৩৬ অপরাহ্ণ | জুন ১০, ২০২০ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ১৮০ বার

সোহেল সজীব চুয়াডাঙ্গাঃ চুয়াডাঙ্গায় সাইফুল ইসলাম হত্যা ঘটনায় আসামীদের ধরতে ও দ্রুত বিচারের দাবিতে মানব বন্ধন ও সংবাদ সম্মেলন করেছে নিহতের পরিবারের সদস্য ও গ্রামবাসী। বুধবার দুপুর ১ টায় জেলা প্রেস ক্লাবের সামনে মানব বন্ধন শেষে জেলা প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেল অনুষ্ঠিত হয়।
সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ করা হয়, হত্যা ঘটনার পর ১৭ দিন পার হলেও মামলার এজহার ভুক্ত আসামীদের পাঁচজনই এখনও পুলিশের ধরা-ছোঁয়ার বাইরে। পুলিশ অজ্ঞাত কারণে তাদের গ্রেফতার করছে না।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে নিহত সাইফুল ইসলাম পিতা আবদার আলী জানান, সাইফুল ইসলাম (৩৮) নিখোজ হয় ২৪ মে সন্ধা থেকে। পর দির সোমবার (২৫ মে) সকালে দামুড়হুদা উপজেলার সীমান্তবর্তী কুতুবপুর বিজিবি ক্যাম্পের পাশ থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় (২৫ মে) সকালে তিনি পাঁচ জনকে আসামী করে হত্যা মামলা দায়ের করেছে।
এ সময় আবদার আলী আরও বলেন, দেশে সাধারণ মানুষের ওপর এ রকম সহিংস ঘটনা নতুন কিছু নয়। আমার ছেলে হত্যাও এ রকম একটি ঘটনা। বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যা, মানবতার মা যিনি দীর্ঘদিন পর জাতির জনকের হত্যার বিচার করেছেন সেই মায়ের কাছে আমার করজোড়ে অনুরোধ একজন বাবার প্রাণের আকুতি, আমি ছেলে হত্যার বিচার চাই। আমার ছেলের খুনিদের সর্বোচ্চ শাস্তি ফাঁসি চাই। সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন, মৃত. সাইফুল ইসলামের চাচা মুনসুর আলী, ভাই মুনসুর আলী, চাচাতো ভাই হানেফসহ গ্রামবাসী।

Shares