আজ বৃহস্পতিবার , ২৩শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৮ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

বাউফলে মাছের পোনা অবমুক্তকরণ বাউফল উপজেলা ও পৌর সেচ্ছাসেবক দলের আহব্বায়ক কমিটি ঘোষণা বাউফলে ইউএনও’র বিদায়ী সংবর্ধনা নালিতাবাড়ীতে জেলা শিক্ষা অফিসারের বিদ্যালয় পরিদর্শন বাউফলে বিএনপি’র ৪৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত বাউফলে ছেলের বিচার চেয়ে বাবা মায়ের সাংবাদিক সম্মেলন বাউফলে জাতীয় মৎস সপ্তাহ শুরু হালুয়াঘাটে বজ্রপাতে মৃত্যু! বাবার লাশের পাশে দেড় বছরের শিশু ‘নুসাইবা’ হালুয়াঘাটে নির্মাণের বছরেই বক্স কালভার্ট ধ্বস! বাউফলে বিএনপি’র চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া-মোনাজাত ভিক্ষের টাকা গণনা করছিলো ভিক্ষুক। ইমাম বাসের চাপায় মৃত্যু ঐ ভিক্ষুকের শোক দিবসে হালুয়াঘাটে বিজিবি’র ত্রাণ বিতরণ বাউফলে সফিউল বারী বাবু’র মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া-মোনাজাত করোনা টেস্ট করাতে অনিহা হালুয়াঘাটে করোনায় আক্তান্ত হয়ে ৯৬ বছরের বৃদ্ধের মৃত্যু। মোট মৃত্যু-৭

বাস চালানোর সমালোচনা করায় ডিজিটাল আইনে সাংবাদিক আটক

প্রকাশিতঃ ২:১০ অপরাহ্ণ | মে ২৭, ২০২০ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২০২ বার

স্টাফ রিপোর্টারঃ করোনার মহামারীতে সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে বাস চালানোর সমালোচনা করে ফেসবুকে পোস্ট দেয়ার অভিযোগে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দৈনিক মানবজমিনের গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলা প্রতিনিধি সিরাজুল ইসলাম রতনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
মঙ্গলবার সকালে পলাশবাড়ী উপজেলা সদরের তার বাসা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। বিকালেই আদালতের মাধ্যমে গাইবান্ধা জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।
পলাশবাড়ী থানার ওসি মাসুদুর রহমান জানান, গাইবান্ধা জেলা বাস মিনিবাস কোচ ও মাইক্রোবাস শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি এবং ফাতেমা পরিবহনের মালিক আব্দুস সোবাহান ওরফে বিচ্চুর দায়ের করা ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।
ওসি মাসুদুর জানান, গণপরিবহন চলাচলে সরকারি নিষেধাজ্ঞার মধ্যে বাস চালিয়ে ধরা পড়ে ফাতেমা পরিবহন। সেসব ঘটনায় ট্রাফিক আইনে মামলা করে জরিমানা আদায়ও করা হয়। তবে এরপরও ফাতেমা পরিবহন মহাসড়কে বাস চালিয়ে আসছিল।
এ পরিস্থিতিতে সাংবাদিক রতন ফেসবুকে ওই শ্রমিক নেতার নাম উল্লেখ করে পোস্ট দেন। তাতে তিনি উল্লেখ করেন যে মহাসড়কে বাস চলাচলে বাধা দিলে পুলিশকে চাপা দিয়ে চলে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন ওই শ্রমিকনেতা। এ প্রেক্ষিতে এই মামলা হয়েছে।
সাংবাদিক সিরাজুল ইসলাম রতনের আইনজীবী শাহনেওয়াজ খান জানান, গাইবান্ধার পলাশবাড়ী আমলী আদালতে অনলাইনে সাংবাদিক রতনের জামিন আবেদন করা হয়। আদালতের বিচারক সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট উপেন্দ্র চন্দ্র দাস আবেদনের শুনানি শেষে জামিন আবেদন নাকচ করে তাকে কারাগারে পাঠান।
গত ১২ মে এ নিয়ে শ্রমিক নেতা আব্দুস সোবাহান ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে পলাশবাড়ী থানায় এ মামলা করেন।।

Shares