আজ বৃহস্পতিবার , ৩০শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৬ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

সখিনা! স্বজনদের দাবীমতে উনিই পৃথিবীর বয়স্ক নারী। প্রধানমন্ত্রীর সামনে তরুণীর আর্তনাদ নিরন্ন মানুষের বোবা কান্নার প্রতিধ্বনি: এমরান সালেহ প্রিন্স বীরত্ব আর সাহসিকতার স্বীকৃতি পেলেন এসপি তারিক নালিতাবাড়ীতে বিদেশী মদসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক নকলায় আমির হোসেন বিশ্ব’র টাকা তৈরির ফাঁদ পদ্মা সেতু উদ্ভোধন উপলক্ষে হালুয়াঘাটে আনন্দ র‍্যালী নালিতাবাড়ীতে আগুনে পুড়ে তিন গরুর মৃত্যু নালিতাবাড়ীতে নিখোঁজের ১৬ দিন পর লাশ উদ্ধার স্বামীর নির্যাতনে স্ত্রীর আত্মহত্যা। গ্রেফতার হয়নি স্বামী বাউফলে ডিজিটাল পদ্ধতিতে জনশুমারী ও গৃহগণনার কাজ সম্পন্ন নকলায় সংবাদ কর্মীর উপর হামলা উৎসব বন্ধ করে দূর্দিনে জনগণের পাশে দড়ানঃএমরান সালেহ প্রিন্স কবরস্থানের টাকা আত্মসাৎ,কবরস্থানের উন্নয়নে বাধা প্রদান করায় প্রতিবাদে সংবাদ সন্মেলন পাহাড়ী ঢলে ভোগাই নদীর ভাঙ্গন! ভেঙ্গে গেছে ব্রীজ নালিতাবাড়ীতে প্রাকৃতিক দূর্যোগে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে ত্রান বিতরন

করোনায় ট্রাম্পের জনপ্রিয়তা হ্রাস!

প্রকাশিতঃ ৮:৩২ অপরাহ্ণ | এপ্রিল ২০, ২০২০ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৩৪৭ বার

ট্রাম্পের জনপ্রিয়তা হ্রাস!

ডেস্ক রিপোর্টঃ করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের এই সময়ে এসে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের জনপ্রিয় আরও কমে গেছে। সম্প্রতি করা এক জরিপে দেখা গেছে, বর্তমানে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে সমর্থনের হার ৪৩ শতাংশ। আর তাঁকে সমর্থন করে না, এমন মানুষের হার ৫৪ শতাংশ।২০ এপ্রিল সিএনএন-এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়, সম্প্রতি আমেরিকার জনপ্রিয় অ্যানালিটিকস ও অ্যাডভাইজারি কোম্পানি গ্যালাপ এই জরিপটি চালিয়েছে। জরিপে বলা হয়, গত মার্চ মাসে ট্রাম্পের জনসমর্থনের হার ছিল ৪৯ শতাংশ। সেখান থেকে এখন কমে তা ৪৩ শতাংশে দাঁড়িয়েছে। আর মার্চ মাসের তুলনায় ৯ পয়েন্ট বেড়েছে তাঁর অজনপ্রিয়তার হার। মার্চে এই হার ছিল ৪৫ শতাংশ। যা বেড়ে হয়েছে ৫৪ শতাংশ। প্রতিবেদনে বলা হয়, ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রেসিডেন্সি নেওয়ার প্রথম মাস থেকেই তাঁর সমর্থন ও অসমর্থনের হার পাশাপাশি বেড়ে চলছিল। কিন্তু সম্প্রতি এক সপ্তাহের মধ্যেই তাঁর জনপ্রিয়তা ক্ষমতা গ্রহণের পর সবচেয়ে নীচে এসে ঠেকল। গত ১১ মার্চ পর্যন্ত ট্রাম্পের অ্যাপ্রুভাল রেটিং ছিল ১০ পয়েন্টে। ২৭ মার্চ তা আরও ৪ পয়েন্ট যায়। কিন্তু এই মুহূর্তে এসে তা আট পয়েন্ট নিচে নেমে গেছে। এর আগে ট্রাম্পের প্রেসিডেন্সির প্রথম বছরের শেষের দিকেও তাঁর অ্যাপ্রুভাল রেটিং কমে গিয়েছিল। বলা হয়, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধোত্তর আমেরিকায় যেকোনো প্রেসিডেন্টের চেয়ে কম অ্যাপ্রুভাল রেটিং পেয়েছিলেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এর আগে আধুনিক আমেরিকার কোনো প্রেসিডেন্টই মেয়াদের প্রথম বছরে এতটা অজনপ্রিয় ছিলেন না।
সে সময় গ্যালাপ তথ্য দিয়েছিল, যেকোনো মার্কিন প্রেসিডেন্টের প্রথম বছরের তুলনায় বর্তমান প্রেসিডেন্টের প্রথম বছর মানুষের কাছে কম গ্রহণযোগ্য বলে বিবেচিত হয়েছে। এর আগে এ ক্ষেত্রে সবচেয়ে কম রেটিং পেয়েছিলেন জেরাল্ড ফোর্ড। ১৯৭৪ সালে ক্ষমতার প্রথম বছরের ১ ডিসেম্বর তাঁর রেটিং ছিল ৪২ শতাংশ। আর ১৯৮১ সালে রোনাল্ড রিগ্যানের প্রথম বছরের রেটিং ছিল ৪৮ শতাংশ। আর সদ্য সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার প্রথম বছরে ২০০৯ সালের ১ ডিসেম্বর রেটিং ছিল ৫১ শতাংশ। এ হিসাবে ট্রাম্প সত্যিই অনেক পিছিয়ে আছেন। এবং এখনো পিছিয়ে যাচ্ছেন।

Shares