আজ বৃহস্পতিবার , ২৯শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ১৩ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

নালিতাবাড়ীতে কাল্বের ১১তম বার্ষিক সাধারন সভা অনুষ্ঠিত ত্রিশালে দুই মাদক কারবারী আটক- বাউফলে যুবদলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত ফ্রান্সে মহানবী(সঃ) এর ব্যাঙ্গচিত্র প্রদর্শনের প্রতিবাদে বাউফলে মানববন্ধন ব্যারিস্টার রফিক উল হকের মৃত্যুতে ত্রিশাল অনলাইন প্রেসক্লাবের শোক প্রকাশ হালুয়াঘাট ও ধোবাউড়ায় পুজা পরিদর্শনে এমরান সালেহ প্রিন্স বরিশাল বিভাগের সেরা সম্পাদক হিসেবে সম্মাননা পেলেন দৈনিক দ্বীপাঞ্চল সম্পাদক ইউটিউবে ঝড় তুললেন ৭ বছরের “জারা” ৯ বৎসর পেরিয়েও হচ্ছেনা হালুয়াঘাটের দুই ইউপি’র নির্বাচন ত্রিশালে এটিএম সিআরএম বুথ এর শুভ উদ্বোধন – উপ নির্বাচন. ইউপি সদস্যসহ আটক ৪ হালুয়াঘাটে পৃথক স্থানে ট্রাক চাপায় ও বিদ্যুৎস্পৃষ্টে দুইজনের মৃত্যু গৌরিপুরে স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা হালুয়াঘাটে ইয়াবাসহ আটক-২ সারাদেশে ধর্ষণের প্রতিবাদে হালুয়াঘাটে মানববন্ধন

ময়মনসিংহে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য, ফসলি জমি দখল করে মাটি বিক্রি!

প্রকাশিতঃ ৫:৩৯ অপরাহ্ণ | মার্চ ১৯, ২০১৯ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২০৫ বার

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, ময়মনসিংহ ১৯ মার্চ: ময়মনসিংহে সদর উপজেলার সুহিলা কাটাখালপাড় গ্রামে আদালতের অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ফসলি জমি জবর দখল করে যন্ত্র দিয়ে মাটি খুড়ে বিক্রি করছেন স্থানীয় প্রভাবশালী সন্ত্রাসীরা। এনিয়ে প্রশাসনেরর কাছে অভিযোগ করেও কোন প্রতিকার পাচ্ছে না নিরীহ ভূক্তভোগী পরিবার।

এদিকে ভুক্তভোগী ছফির উদ্দিন জানান, পূর্ববিরোধের জের ধরে স্থানীয় সন্ত্রাসীদের গডফাদার হুমায়ুনের নেতৃত্বে একদল স্বশস্ত্র সন্ত্রাসী বাহিনী আমাদের সাড়ে ১০ কাঠা খারিজ ফসলি ভূমি জবর দখল করে যন্ত্র দিয়ে মাটি খুড়ে বিক্রি করছে। বাধাঁ দিতে গেলে সন্ত্রাসীরা জানে মেরে ফেলার হুমকি দিচ্ছে। ঘটনাটি নিয়ে থানা পুলিশের কাছে লিখিত অভিযোগ করা হলেও কোন প্রতিকার মিলছে না।

অপর ভূক্তভোগী আ: মোতালেব জানান, ওই ভূমিতে বিজ্ঞ আদালত অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা জারী করেছেন। কিন্তু সন্ত্রাসী হুমায়ুন আদালতের আদেশ অমান্য করে যন্ত্র দিয়ে গর্ত খুড়ে মাটি বিক্রি করছে। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় ভাবে অসংখ্য বার শালিস হলেও বিচার মানছেন না হুমায়ুন। বর্তমানে পরিবার নিয়ে আমরা সন্ত্রাসী হুমকির মুখে আতংকে দিনযাপন করছি।

অন্যদিকে সদর উপজেলার ১১ নং ঘাগড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শাজাহান সরকার সাজু জানান, মালিকানা বিরোধের জের ধরে অনেক বার শালিস হয়েছে। কিন্তু আপোষ হয়নি। বর্তমানে হুমায়ুন ওই জমি থেকে মাটি কেটে বিক্রি করছে। তবে প্রকৃত মালিক কে ? তা বলতে পারছি না।

এদিকে এসব অভিযোগ অস্বীকার করে হুমায়ুন বলেন, আমি আমার জমি থেকেই মাটি কেটে বিক্রি করছি। তাদের অভিযোগ মিথ্যা।

এ বিষয়ে কোতয়ালী মডেল থানার ওসি মাহমুদুল হাসান বলেন, ফসলি জমি নষ্ট করা আইনে অপরাধ। এ ধরনের কোন ঘটনা জানা নেই। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে। তবে ভূমি সংক্রান্ত বিষয়ে এসিল্যান্ড ভালো বলতে পারবেন।
ছবি

Shares