আজ বৃহস্পতিবার , ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

বাউফলে সাবেক এমপি শহীদুল আলম তালুকদারের মতবিনিময় সভা হালুয়াঘাটে নবান্নকে ঘিরে পিঠা পুলির উৎসব! কোভিড-১৯ প্রতিরোধে জনসচেতনতা বৃদ্ধিতে মেয়রের আহব্বান বাউফলে তারেক রহমানের জন্মবার্ষিকী পালিত বাউফলে প্রায়তঃ শিক্ষকের রুহের মাগফিরাত কামনায় দোয়া-মোনাজাত আত্মহত্যার পরও সূদের টাকার জন্য ফোন! ত্রিশালে সড়ক দূরঘটনায় একজন নিহত চার জন আহত ত্রিশালে যুবলীগের ৪৮তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত আমতলীতে মাদ্রাসা মাঠে ধান চাষ বরগুনায় ১০ দোকান পুড়ে ছাই হৃদয় হত্যাকাণ্ডে জড়িত প্রত্যেকের ফাঁসি চান পরিবার আইপিএলে ,নিঃস্ব হচ্ছে অনেক পরিবার ত্রিশাল অনলাইন প্রেসক্লাবের উদ্যোগে শাহ্ আহসান হাবীব বাবুর জন্ম দিন পালন বরগুনায় সেরা সম্পাদককে সংবর্ধনা বরগুনা বেতাগীর আলোচিত বজলু হত্যা মামলার ২ নম্বর আসামি আটক

নালিতাবাড়ীতে স্বামীর হাতে স্বামী খুন॥ খুনি আটক

প্রকাশিতঃ ৯:৪৯ অপরাহ্ণ | ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০১৯ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২৫৯ বার

নালিতাবাড়ী থেকে লাল মোঃ শাহজাহান কিবরিয়াঃ
নালিতাবাড়ী উপজেলার খুজিউরা গ্রামে প্রথম স্বামী কালু মফিজুলের হাতে নৃশংসভাবে খুন হয়েছে দ্বিতীয় স্বামী বাবুল । সোমবার গভীর রাতে এ খুনের ঘটনাটি ঘটে। পুলিশ ঘাতক স্বামীকে আটক করেছে।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, প্রায় ১৪ বছর আগে খুজিউরা গ্রামের মৃত তোফাজ্জল হোসেনের কন্যা শহিদার (২৭) বিয়ে হয় পৌর শহরের গড়কান্দা মহল্লার আমির হোসেনের পুত্র কালু মফিজুলের (৩৫)। কালু পেশায় একজন রিকশাচালক। সংসার জীবনে তাদের ময়না নামে ১১ বছরের একজন কন্যা ও সজীব নামে ৬ বছরের একজন পুত্র রয়েছে। কালু বছরের প্রায় বেশিরভাগ সময় ঢাকায় মানিক নগর বস্তিতে থেকে রিকশা চালাতো। এ সময় তার পরিচয় হয় আরেক রিকশা চালক একই উপজেলার কোন্নগর গ্রামের আরমান আলীর পুত্র বাবুুেলর (৩৫)। বাুবলও বিবাহিত এবং দু’ সন্তানের জনক। দু’জনে মাঝে গড়ে উঠে সখ্যত্ া। মাঝে মাঝেই বাবুল কালুর সাথে কালুর বাড়িতে বেড়াতে আসতো। এই সুযোগে বাবুলের সঙ্গে সম্পর্ক গড়ে উঠে কালুর স্ত্রী শহিদার। এক পর্যায়ে প্রায় ১ মাস আগে শহিদা প্রথম স্বামী কালুকে তালাক দিয়ে বাবুলকে বিয়ে করে। সন্তানদের কালুর বাড়িতে রেখে বসবাস শুরু করে খুজিউরা গ্রামের মামা মোস্তফার বাড়িতে। ২৫ ফেব্রুয়ারী দিবাগত রাতে ক্ষুব্ধ কালু স্ত্রী শহিদাকে খুন করার উদ্দেশে শহিদার বাড়ির সিম গাছের ঝোঁপে উৎপেতে থাকে। রাত দেড়টার দিকে শহিদা ও দ্বিতীয় স্বামী বাবুল প্রকৃতির ডাকে ঘর থেকে বের হলে, কালু স্ত্রীকে ছুরি দিয়ে আঘাতের চেষ্টা করে। এ সময় দ্বিতীয় স্বামী বাবুল তাকে রক্ষা করতে এলে সে বাবুলকে উপর্যুপরি ছুরিকাঘাত করে। স্ত্রী শহিদা কালুকে গলায় ঝাপটে ধরে চিৎকার শুরু করলে, আশেপাশের লোকজন কালুকে বেঁধে রেখে থানায় খবর দেয় এবং বাবুলকে নিয়ে হাসপাতালের পথে রওয়ানা দেয়। পথেই বাবুল মারা যায়। পরে পুলিশ কালুকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে। এ ব্যাপারে বাবুলের ভাই বাদি হয়ে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে।

Shares