আজ শুক্রবার , ১৬ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৩রা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

খুলনায় বাঘের হামলায় ‘নিহত’ সিরাজুল ফিরলেন জীবিত হালুয়াঘাটে অবৈধভাবে মাটি উত্তোলনে ৫০ হাজার টাকা অর্থদন্ড খালেদার রোগ মুক্তিতে হালুয়াঘাটে বিএনপি’র দোয়া অসুস্থ্য স্ত্রীকে দেখতে হাসপাতালে আসার সময় ট্রাকচাপায় এক প্রকৌশলী নিহত খালেদা জিয়ার রোগ মুক্তি কামনায় হালুয়াঘাটে বিএনপি’র দোয়া খালেদা জিয়া করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হালুয়াঘাটে হেফাজত নেতা মাওঃ মামুনুলকে নিয়ে তর্ক! শিক্ষকের চোখে ঘুষি হালুয়াঘাটে লকডাউনের প্রথম দিনে ৩ জনকে অর্থদন্ড বাউফলে ৭ জনের অর্থদন্ড বরগুনায় আয়লা পাতাকাটা ইউনিয়নে নৌকার প্রার্থীর উপর হামলা, আহত-১০ ট্রাকে চাপ দিয়ে ছেঁচড়িয়ে নিয়ে যায় ‘অনিক’কে! আরও এক মর্মান্তিক মৃত্যু বাউফলে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদ্যাপিত ইউপি নির্বাচন বাউফলে ২ চেয়ারম্যান ও ১ মেম্বার বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত বাউফলে ২ দিন ব্যাপী উন্নয়ন মেলা শুরু হালুয়াঘাটে মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতিস্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলি

দুই গ্লাস পানি পরিবেশনে বকশিস সাত লাখ

প্রকাশিতঃ ৯:৫৩ অপরাহ্ণ | অক্টোবর ২৩, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২৮২ বার

অনলাইন ডেস্কঃ রেস্তোরাঁতে খাবারের বিল পরিশোধের পর টিপস দেয়াটা এখন খুব সাবলীল একটা ব্যাপার হয়ে গিয়েছে। বরং নিজের মান বোঝাতে অনেকেই বেশি টিপস দেয়াকে বেছে নেন। তবে তাই বলে সেটার পরিমাণ লক্ষাধিক হবে এটা দিবাস্বপ্নেও কেউ দেখবে না। তবে এমন কাল্পনার অতীত ঘটনা বাস্তবেই ঘটেছে।
আনন্দবাজারের বরাত দিয়ে জানা যায়, যুক্তরাষ্ট্রে নর্থ ক্যারোলিনায় গ্রিনভিলের ‘সুপ ডগস’ নামে একটি রেস্তোরাঁয় গত শনিবার এক ব্যক্তি এসে দুই গ্লাস পানি পান করার জন্য চাইলেন। রেস্তোরাঁর কর্মী অ্যালাইনা কাস্টার পানি দিয়ে যাবার পর যখন বিল নিতে ফিরে আসেন তখন তার জন্য রেখে যাওয়া টিপস দেখে তার চক্ষু চড়কগাছ। কারণ, দুই গ্লাস পানি পরিবেশনের জন্য বকশিস হিসেবে পেয়েছেন ৭ লাখ ৩৬ হাজার টাকা। সঙ্গে একটি ছাট্ট নোট।
তাতে লেখা, ‘সুস্বাদু পানির জন্য ধন্যবাদ।’

এ ঘটনায় প্রথমে বিশ্বাসই করতে পারেননি অ্যালাইনা। তিনি প্রথমে মনে করেছিলেন, ওই ব্যক্তি হয়তো ভুল করে টাকাগুলো ফেলে গেছেন। অথবা কেউ তার সঙ্গে মজা নিচ্ছে। কিন্তু সত্যিকার অর্থেই ওই টাকাগুলো অ্যালাইনা কাস্টারকে বকশিস হিসেবে দেয়া হয়েছিল। আর যিনি দিয়েছিলেন তিনি জনপ্রিয় ইউটিউবার মিস্টার বিস্ট।

এমন বিষ্ময়কর ঘটনায় রেস্তোরাঁটির কর্মী অ্যালাইনা কাস্টার বলেন, এই টিপসটা আমার কাছে ভীষণ জরুরি ছিল। এটি কল্পনাতীত এবং আনন্দের। কারণ সুপ ডগসে যারা কাজ করেন তাদের বেশিরভাগই কলেজপড়–য়া। এই বকশিস সবাই মিলে ভাগ করে নেবেন বলেও অ্যালাইনা নিজের ফেসবুক পাতায় জানান।
অন্যদিকে সুপ ডগস রেস্তোরাঁও ফেসবুকে তাদের কর্মী অ্যালাইনা কাস্টারের ছবি শেয়ার করেছে ফলাও করে। আর এতে বিখ্যাত ইউটিউবার মিস্টার বিস্টের প্রশংসায় পঞ্চমুখ সবাই।

Shares