আজ সোমবার , ২৭শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৩ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

নালিতাবাড়ী উপজেলা নির্বাচনে মোশারফ, ফরিদ, আশুরা বিজয়ী গরীবের আশার বাতিঘর হাজী মোশারফ হালুয়াঘাটে পল্লী বিদ্যুতের খুঁটি পুঁততে গিয়ে মৃত্যু-১, আহত-১ জাতীয় ভাবে”স্বপ্নজয়ী মা” নির্বাচিত হলেন জামালপুর জেলার দেওয়ানগঞ্জের অবিরণ নেছা ৬১০৮ ভোটের ব্যবধানে হামিদ বিজয়ী। শেখ রাসেল ও মনোয়ারা ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত হালুয়াঘাট উপজেলা পরিষদ নির্বাচনঃ প্রবীণে প্রবীণে লড়াই এম্বুলেন্সে করে মাদক পাচারকালে ২৪০ বোতল ভারতীয় মদসহ একজন আটক এমপি মাহমুদুল হক সায়েমকে সি.আই.পি শামিমের সংবর্ধনা হালুয়াঘাটে ঈদে বাড়ি ফেরার পথে লাশ হল স্বামীসহ অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী হালুয়াঘাটের স্থলবন্দর দিয়ে ২৭টি পণ্যের আমদানী রপ্তানীর পরিকল্পনা-এমপি সায়েম হালুয়াঘাটে ২৭ হাজার দুস্থ অসহায় পাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার ১৩ বছর পর পদত্যাগ করলেন ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর হালুয়াঘাটে ফেইসবুক গ্রুপে কোরআন তেলাওয়াত ও ইসলামী সংগীত প্রতিযোগিতা। পুরস্কার বিতরণ ‘কৃষ্ণনগরের কৃষ্ণকেশীর ‘বেহিসেবি রঙ.. হিমাদ্রিশেখর সরকার হালুয়াঘাট থেকে ফুলপুর পর্যন্ত চার লেনের রাস্তা নির্মাণসহ সড়ানো হচ্ছে অস্থায়ী বাস কাউন্টার

মায়ের কোলে চড়ে পরীক্ষার হলে, চান্স পেলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে

প্রকাশিতঃ ৮:১১ অপরাহ্ণ | সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৫৩৪ বার

অনলাইন ডেস্কঃ মায়ের শক্তিতেই বলীয়ান হৃদয়। স্কুল-কলেজের গণ্ডি পেরিয়ে উচ্চশিক্ষার অঙ্গনে ‘পা’ রাখতে যাচ্ছেন নেত্রকোণার হৃদয় সরকার; যদিও দুই পায়ে চলার শক্তি নেই তার। সেই হৃদয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছেন।

আর তার এই যুদ্ধে সবসময় শক্তি যুগিয়েছেন মা সীমা সরকার। স্কুল থেকে কলেজ, তারপর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা, সবখানেই মায়ের কোলে চড়েই দিতে গেছেন হৃদয়।

অজানা এক রোগে জন্ম থেকে চলচ্ছক্তিহীন হৃদয়কে কখনোই কোল ছাড়া করেননি সীমা সরকার। গত শুক্রবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা দিতেও মায়ের কোলে চড়ে এসেছিলেন হৃদয়।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা দিতে আসা মায়ের কোলে হৃদয়ের এই ছবিই ফেইসবুকে ভাইরাল হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্র মায়ের কোলে হৃদয়ের ছবি তুলে ফেইসবুকে পোস্ট করার অল্প সময়ের মধ্যেই তা ভাইরাল হয়ে যায়। আর হৃদয় জয় করে নেন অসংখ্য মানুষের হৃদয়।

মঙ্গলবার প্রকাশিত হয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা অনুষদের অধীনে ‘খ’ ইউনিটে ভর্তি পরীক্ষার ফল। সেখানে ২ হাজার ৩৭৮টি আসনের বিপরীতে যোগ্য বিবেচিত হয়েছেন চার হাজার ৭৪৭ জন।

তার মধ্যে হৃদয়ের অবস্থান ৩ হাজার ৭৪০তম। মেধাক্রমের এই অবস্থান থেকে যদিও সরাসরি ভর্তির সুযোগ কম, তারপরও প্রতিবন্ধী কোটায় হৃদয় ভর্তি হতে পারবেন।

সমীরণ সরকার ও সীমা সরকারের দুই সন্তানের মধ্যে বড় হৃদয় সরকার নেত্রকোণার আবু আব্বাস ডিগ্রি কলেজ থেকে জিপিএ ৪.৫০ পেয়ে উচ্চ মাধ্যমিক ও নেত্রকোণা জেলা স্কুল থেকে জিপিএ ৪.০৬ পেয়ে মাধ্যমিক পাস করেছেন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে তার সব অর্জনের কৃতিত্ব মাকেই দিয়েছেন হৃদয়।

ভর্তি পরীক্ষায় হৃদয়ের ফল। ভর্তি পরীক্ষায় হৃদয়ের ফল। তিনি বলেন, “আমার এই ফলাফলের পেছনে সবচেয়ে বড় অবদান আমার মায়ের। সেই ছোট থেকেই তিনি আমাকে কোলে করে স্কুল-কলেজে নিয়ে যান।
“তিনি আমাকে কোনোদিন হুইল চেয়ার ব্যবহার করতে দেননি। তিনি বলেন, যতদিন তিনি বেঁচে আছেন, যতদিন সামর্থ্যে কুলায়, তিনি আমাকে কোলে করেই নিয়ে যাবেন।”

তবে হৃদয়ের এই ফলাফলে উচ্ছ্বসিত তার পুরো পরিবার। “আমার বাবা-মা অত্যন্ত খুশি হয়েছেন, তাদের কষ্ট স্বার্থক হয়েছে,” বলেন হৃদয়। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগও প্রতিবন্ধী হৃদয় সরকারের পাশে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সঞ্জিত চন্দ্র দাস বলেন, “হৃদয়ের ফলাফল শোনার পরই আমি ওকে ফোন করেছি। ও যেহেতু আমার হল জগন্নাথ হলেই থাকবে সেহেতু ওর হলে সিটের ব্যবস্থা আমি করে দেব।”

“এছাড়া আর্থিক, একাডেমিকসহ যে ধরনের সাহায্যের দরকার হবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে আমরা করব।”

Shares