আজ রবিবার , ২৮শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

ব্রাহ্মণবাড়িয়াতে পৃথক স্থানে ট্রেনে কাটা পড়ে ২জন নিহত এমপি’র পক্ষে হালুয়াঘাট ধান্য ব্যবসায়ী সমিতির কম্বল বিতরণ ধোবাউড়ায় ট্রাক-হোন্ডা সংঘর্ষে নিহত-২, চালক ও হেলপার আটক বাউফলে ইউপি চেয়ারম্যানের ওপর হামলাকারীদের গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবি হালুয়াঘাটে ঝরে পড়া শিশুরা পাবে শিক্ষার সুযোগ। আসছে শিক্ষক নিয়োগও হালুয়াঘাটে স্বামীর আত্নহত্যা দেখে স্ত্রীও বিষ খায়! দুজনেরই মৃত্যু হালুয়াঘাটে স্বামী-স্ত্রীর আত্নহত্যা রাহেলা হযরত মডেল স্কুলে প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত ত্রিশাল অনলাইন প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে ভাষা শহীদদের স্মরণে শ্রদ্ধাঞ্জলি ভাষা শহীদদের প্রতি কংশ টিভির পরিবার ও গণমাধ্যম কর্মীদের শ্রদ্ধাঞ্জলী ফুটবল ফাইনাল টুর্নামেন্টে বিজয়ী মধুপুর একাদশ স্পোটিং ক্লাব ২৮ ফেব্রুয়ারী পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়লো ময়মনসিংহ জেলার শ্রেষ্ট উপজেলা নির্বাহী অফিসার ত্রিশালের মোস্তাফিজুর রহমান হালুয়াঘাটে পিকনিকের বাস উল্টে আহত-৮ ময়মনসিংহের ত্রিশালে করোনা টিকাদান কর্মসূচির উদ্বোধন

‘কেউ একাধিক বিয়ে করলে বিসিবির কিছু করার নেই’

প্রকাশিতঃ ৮:৪৪ অপরাহ্ণ | আগস্ট ৩০, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২৯৬ বার

স্পোর্টস ডেস্ক: ক্রিকেটারদের মধ্যে কেউ যদি একাধিক বিয়ে করে বা কাউকে ডিভোর্স দেয়, সেক্ষেত্রে বিসিবির কিছু করার নেই বলে জানিয়েছেন সংস্থাটির সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।

বৃহস্পতিবার (৩০ আগস্ট) বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এসব কথা বলেন পাপন।

সম্প্রতি বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের বেশ কয়েকজন ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ উঠাছে। মূলত সাব্বির রহমানকে স্কোয়াড থেকে বাদ দেয়ার কারণ হিসেবে তার ব্যক্তিগত জীবনের বিভিন্ন ঘটনাকে দায়ী করেছেন বিসিবি সভাপতি।

আগামী শনিবার (১ সেপ্টেম্বর) শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগের ভিত্তিতে তিনজন ক্রিকেটারকে শুনানিতে ডাকা হয়েছে। তাদের মধ্যে আছেন সাব্বির রহমান, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত ও নাসির হোসেন।

পাপন বলেন, ‘ক্রিকেটারদের ব্যক্তিগত অনেক সমস্যা আছে সেখানে বিসিবির পক্ষে ব্যবস্থা নেয়া সম্ভব হয় না। কেউ যদি কাউকে ডিভোর্স দেয় বা কেউ যদি একাধিক বিয়ে করে সেখানেও আমাদের কিছু করার নেই।’

তিনি বলেন, ‘এটা আমরা বলতে পারি না যে ক্রিকেট যারা খেলে তারা একাধিক বিয়ে করতে পারে না। তবে ক্রিকেটাররা যেহেতু আইডল বাংলাদেশের অনেকের কাছে, অনেকে সমর্থন করেন, অনেকে অনুসরণ করেন তাই বিসিবি চেষ্টা করে ক্রিকেটারদের ভাল মানুষ হিসেবে গড়ে তুলতে।’

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড কোনও ক্রিকেটারের ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ যে শাস্তি সেটা নির্ধারণ করেছে সেটা হলো আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে খেলতে না ডাকা।

নাজমুল হাসান পাপন বলেন, ‘বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড মূলত রুবেল হোসেনের ক্ষেত্রে সাহায্য করেছিল। ২০১৫ সালের বিশ্বকাপে তাকে দরকার ছিল।’

বিদেশে ভ্রমণের সময় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ক্রিকেটারদের আচরণেও লাগাম টানা হতে পারে বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন তিনি।

ক্রিকেটারদের মানসিক অবস্থার উন্নতির জন্য একজন মনোরোগ বিশেষজ্ঞ নিয়োগ দেয়ার কথা আজ বিসিবির অনানুষ্ঠানিক সভায় আলোচনা করেছেন কর্মকর্তারা।

Shares