আজ বৃহস্পতিবার , ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

বাউফলে সাবেক এমপি শহীদুল আলম তালুকদারের মতবিনিময় সভা হালুয়াঘাটে নবান্নকে ঘিরে পিঠা পুলির উৎসব! কোভিড-১৯ প্রতিরোধে জনসচেতনতা বৃদ্ধিতে মেয়রের আহব্বান বাউফলে তারেক রহমানের জন্মবার্ষিকী পালিত বাউফলে প্রায়তঃ শিক্ষকের রুহের মাগফিরাত কামনায় দোয়া-মোনাজাত আত্মহত্যার পরও সূদের টাকার জন্য ফোন! ত্রিশালে সড়ক দূরঘটনায় একজন নিহত চার জন আহত ত্রিশালে যুবলীগের ৪৮তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত আমতলীতে মাদ্রাসা মাঠে ধান চাষ বরগুনায় ১০ দোকান পুড়ে ছাই হৃদয় হত্যাকাণ্ডে জড়িত প্রত্যেকের ফাঁসি চান পরিবার আইপিএলে ,নিঃস্ব হচ্ছে অনেক পরিবার ত্রিশাল অনলাইন প্রেসক্লাবের উদ্যোগে শাহ্ আহসান হাবীব বাবুর জন্ম দিন পালন বরগুনায় সেরা সম্পাদককে সংবর্ধনা বরগুনা বেতাগীর আলোচিত বজলু হত্যা মামলার ২ নম্বর আসামি আটক

গণধর্ষণের শিকার কিশোরীর আকুতি

প্রকাশিতঃ ৭:০২ অপরাহ্ণ | আগস্ট ২৯, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৩৩০ বার

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: সতের বছর বয়সি কিশোরীকে দিনের পর দিন আটকে রেখে ধর্ষণ করা হয়েছে। জোর করে তাঁর শরীরে আঁকা হয়েছে ট্যাটু৷ বন্দিদশা থেকে ছাড়া পেয়ে ধর্ষকদের বিচার চেয়েছেন সেই কিশোরী৷ তাঁর সেই দাবির প্রতি সমর্থন জানিয়েছেন কয়েক হাজার মানুষ৷

চব্বিশ হাজারের বেশি মানুষ মরক্কোর রাজা মোহাম্মেদ ফো’র বরাবর করা একটি অনলাইন পিটিশনে ইতোমধ্যে স্বাক্ষর করেছেন৷ তাঁরা সবাই দু’ মাস আটকে রেখে ধর্ষণ এবং নির্যাতন করা কিশোরিটি যাতে ন্যায় বিচার পান, সেই দাবি জানিয়েছেন৷

‘‘আটকাবস্থায় তাঁর উপর যতরকমের নির্যাতন সম্ভব, সবই করা হয়েছে৷ ১৫ ব্যক্তি তাঁকে ক্রমাগত ধর্ষণ করেছে, পিটিয়েছে, এমনকি তাঁকে ঠিকমতো খাবারও দেয়া হয়নি৷ তাঁর ন্যূতম স্যানিটারি চাহিদাও পূরণ করা হয়নি৷ আটককারীরা তাঁর শরীরে জোরে করে ট্যাটুও এঁকে দিয়েছে,” জানিয়েছেন অনলাইন পিটিশনের আয়োজকরা৷

সতের বছর বয়সি কিশোরী স্থানীয় এক টেলিভিশন চ্যানেলকে জানিয়েছেন, একদল গুন্ডা জুনমাসে তাঁকে অপহরণের পর দুইমাস উলাদ ইয়াদ নামের ছোট্ট এক শহরে বন্দি করে রাখে৷

বন্দি থাকাকালে কিছু মানুষ অপহরণকারীদের অর্থ দিয়ে তাঁকে ধর্ষণ করতো বলেও জানিয়েছেন ওই তরুণী৷ তিনি বলেন, ‘‘তারা আমাকে খাবার বা পানি দিতো না, এমনকি আমাকে গোসলও করতে দেয়নি৷ আমি তাদের বিচার চাই৷ তারা আমার সঙ্গে যা করছে, তার মূল্য তাদের দিতে হবে৷”

কিশোরীর বাবা মোহাম্মেদ ডয়চে ভেলের আরবি ভাষাকে জানিয়েছেন, তার মেয়েকে সহায়তা করতে সরকারি কর্মকর্তা, অ্যাক্টিভিস্ট এবং সাংবাদিকরা বাড়িতে গেছেন৷ তিনি বলেন, ‘‘আমার মেয়ের শারীরিক অবস্থা পর্যবেক্ষণে এবং তাকে মানসিক সহায়তা দিতে একটি মেডিকেল কমিটি গঠন করা হয়েছে৷”

এদিকে, মরক্কোর মানবাধিকার সংগঠনের নাঈমা ওউয়ালি বার্তাসংস্থা এএফপিকে জানিয়েছেন, আলোচিত কিশোরীকে অপহরণ এবং ধর্ষণের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে অন্তত ১২ ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে৷ আরো কয়েকজনকে গ্রেপ্তার করা হতে পারে বলেও জানিয়েছেন তিনি৷

উল্লেখ্য, মরক্কোয় সাম্প্রতিক সময়ে বেশ কয়েকটি যৌন সহিংসতার ঘটনা আলোচনায় আসার পর এ সংক্রান্ত আইন এবং শাস্তি আরো কঠোর করার আহ্বান জানিয়েছেন অ্যাক্টিভিস্টরা৷ দেশটির ৫০ শতাংশের বেশি নারী নানাভাবে সহিংসতার শিকার বলেও সম্প্রতি এক প্রতিবেদনে জানা গেছে৷

সূত্র-ডি ডাব্লিউ।

Shares