আজ সোমবার , ১লা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৬ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

ব্রাহ্মণবাড়িয়াতে পৃথক স্থানে ট্রেনে কাটা পড়ে ২জন নিহত এমপি’র পক্ষে হালুয়াঘাট ধান্য ব্যবসায়ী সমিতির কম্বল বিতরণ ধোবাউড়ায় ট্রাক-হোন্ডা সংঘর্ষে নিহত-২, চালক ও হেলপার আটক বাউফলে ইউপি চেয়ারম্যানের ওপর হামলাকারীদের গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবি হালুয়াঘাটে ঝরে পড়া শিশুরা পাবে শিক্ষার সুযোগ। আসছে শিক্ষক নিয়োগও হালুয়াঘাটে স্বামীর আত্নহত্যা দেখে স্ত্রীও বিষ খায়! দুজনেরই মৃত্যু হালুয়াঘাটে স্বামী-স্ত্রীর আত্নহত্যা রাহেলা হযরত মডেল স্কুলে প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত ত্রিশাল অনলাইন প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে ভাষা শহীদদের স্মরণে শ্রদ্ধাঞ্জলি ভাষা শহীদদের প্রতি কংশ টিভির পরিবার ও গণমাধ্যম কর্মীদের শ্রদ্ধাঞ্জলী ফুটবল ফাইনাল টুর্নামেন্টে বিজয়ী মধুপুর একাদশ স্পোটিং ক্লাব ২৮ ফেব্রুয়ারী পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়লো ময়মনসিংহ জেলার শ্রেষ্ট উপজেলা নির্বাহী অফিসার ত্রিশালের মোস্তাফিজুর রহমান হালুয়াঘাটে পিকনিকের বাস উল্টে আহত-৮ ময়মনসিংহের ত্রিশালে করোনা টিকাদান কর্মসূচির উদ্বোধন

রাজধানীতে ১১ কেজি স্বর্ণসহ আটক ৫

প্রকাশিতঃ ৬:৩৩ অপরাহ্ণ | আগস্ট ২৯, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ১৬১ বার

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজধানীর গাবতলী বাস টার্মিনাল এলাকায় অভিযান চালিয়ে প্রায় ১১ কেজি ওজনের ৯৬টি স্বর্ণের বারসহ আন্তর্জাতিক চোরাচালান চক্রের পাঁচ সদস্যকে আটক করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব-২)। জুতার তলায় বিশেষ কায়দাই ৯৬ টি বার রাখে যার মূল্য সাড়ে ৪ কোটি টাকা। তাদের উদ্দেশ্য ছিল বেনাপোল দিয়ে স্বর্ণের বারগুলো ভারতে পৌঁছে দেওয়া।

বুধবার (২৯ আগস্ট) বিকেলে কারওয়ান বাজার র‍্যাব মিডিয়া সেন্টারে সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানান র‌্যাব-২ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আনোয়ারুজ্জামান।

গ্রেফতারকৃত ৫ স্বর্ণ পাচাকারীরা হলেন, রেজাউল (৩৫), ওলিয়ার (৫০), ওলিয়ার রহমান (৩০), ওহিদুল ইসলাম (৩৪), বিল্লাল (৩৫)।

আনোয়ারুজ্জামান বলেন, যারা স্বর্ণ বহন করছিলেন তারা সবাই একে অপরের আত্মীয়। তারা দীর্ঘ দিন ধরে এ কাজের সঙ্গে জড়িত। এদের প্রধান ছিল ওলিয়ার রহমান। সে আরেক ওলিয়ারয়ের সম্পর্কে শ্যালক হয়।

র‍্যাব এ কর্মকর্তা বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আমরা জানতে পারি, তারা সপ্তাহে দুইবার মাসে ৮ বার যশোরের বেনাপোলে এই কায়দায় স্বর্ণ পৌঁছে দেয়। প্রতিবারের জন্য সর্বমোট ৭ হাজার টাকা পেত তারা। তবে কার মাধ্যমে স্বর্ণগুলো ভারতে যেত সেটা তারা জানত না। তারা প্রত্যেক বার জুতাতেই স্বর্ণ বহন করত। এক জোড়া জুতার তলায় ২০ টি করে স্বর্ণের বার থাকতো। এক বারে মোট ১০ ভরি করে স্বর্ণ থাকে।

র‌্যাব-২’র এই অধিনায়ক বলেন, এই চোরাচালানে মূলে যারা আছে, তাদেরকে খুঁজে বের করার চেষ্টা করা হবে। তাছাড়া এই মামলার তদন্ত করার জন্য আমরা আবেদন করবো। এতে হয়তো গুরুত্বপূর্ণ অনেক তথ্য বের হয়ে আসবে।

Shares