আজ সোমবার , ২৭শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৩ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

নালিতাবাড়ী উপজেলা নির্বাচনে মোশারফ, ফরিদ, আশুরা বিজয়ী গরীবের আশার বাতিঘর হাজী মোশারফ হালুয়াঘাটে পল্লী বিদ্যুতের খুঁটি পুঁততে গিয়ে মৃত্যু-১, আহত-১ জাতীয় ভাবে”স্বপ্নজয়ী মা” নির্বাচিত হলেন জামালপুর জেলার দেওয়ানগঞ্জের অবিরণ নেছা ৬১০৮ ভোটের ব্যবধানে হামিদ বিজয়ী। শেখ রাসেল ও মনোয়ারা ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত হালুয়াঘাট উপজেলা পরিষদ নির্বাচনঃ প্রবীণে প্রবীণে লড়াই এম্বুলেন্সে করে মাদক পাচারকালে ২৪০ বোতল ভারতীয় মদসহ একজন আটক এমপি মাহমুদুল হক সায়েমকে সি.আই.পি শামিমের সংবর্ধনা হালুয়াঘাটে ঈদে বাড়ি ফেরার পথে লাশ হল স্বামীসহ অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী হালুয়াঘাটের স্থলবন্দর দিয়ে ২৭টি পণ্যের আমদানী রপ্তানীর পরিকল্পনা-এমপি সায়েম হালুয়াঘাটে ২৭ হাজার দুস্থ অসহায় পাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার ১৩ বছর পর পদত্যাগ করলেন ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর হালুয়াঘাটে ফেইসবুক গ্রুপে কোরআন তেলাওয়াত ও ইসলামী সংগীত প্রতিযোগিতা। পুরস্কার বিতরণ ‘কৃষ্ণনগরের কৃষ্ণকেশীর ‘বেহিসেবি রঙ.. হিমাদ্রিশেখর সরকার হালুয়াঘাট থেকে ফুলপুর পর্যন্ত চার লেনের রাস্তা নির্মাণসহ সড়ানো হচ্ছে অস্থায়ী বাস কাউন্টার

যৌনপল্লীতে তারকা অভিনেত্রী!

প্রকাশিতঃ ৮:১৬ অপরাহ্ণ | আগস্ট ২৪, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৫৯১ বার

অনলাইন ডেস্কঃ ভারতের জনপ্রিয় হিন্দি ধারাবাহিক ‘কুমকুম ভাগ্য’। আর এর জনপ্রিয় মুখ ম্রুনাল ঠাকুর। যাকে সবাই ‘বুলবুল’ নামেই বেশি চেনে। এই ‘বুলবুল’ ম্রুনালই এবার বোনকে খুঁজতে বেরিয়ে যৌন পল্লীতে বিক্রি হয়ে গেলেন। ঘটনা সত্য, তবে সেটা বাস্তবে নয় রুপালি পর্দায়। ‘লাভ সোনিয়া’ দিয়েই বলিউডে অভিষেক হয়েছে ম্রুনাল ঠাকুরের। আর সেখানে এমনই দৃশ্যে ক্যামেরাবন্দী হয়েছেন নায়িকা।

ভারতীয় গণমাধ্যমে খবর, দুই বোনের স্বপ্নের জগত। একসঙ্গে স্কুলে যাওয়া থেকে শুরু করে বাড়ি ফেরা কিংবা সারা গ্রাম ঘুরে বেড়ানো, প্রীতি এবং সোনিয়া যেন একে অন্যের ছায়া। কিন্তু, আচমকাই সোনিয়ার সামনে থেকে কেউ টানাহেঁচড়া করে নিয়ে যায় প্রীতিকে। বাবা হাজির ছিলেন সেখানে। কিন্তু, পাষণ্ডদের যেন কোনো কিছুতেই থামানো যায়নি। বাবার এবং তার আর এক মেয়ের চোখের সামনে থেকে নিয়ে যাওয়া হয় কিশোরী প্রীতিকে। যা দেখে কান্নায় ভেঙে পড়ে সোনিয়া।

প্রীতির কাছে পাঠিয়ে দাও বলে সোনিয়া বার বার কান্নাকাটি করছিল। শেষ পর্যন্ত তাকেও মুম্বাইতে পাঠিয়ে দেওয়ার উদ্যোগ নেওয়া হয়। কিন্তু, মুম্বাইতে গিয়ে যেন অন্ধ গলিতে হারিয়ে যায় সোনিয়া। বোনকে খুঁজে দেওয়ার নাম করে বিক্রি করে দেওয়া হয় সোনিয়াকে। প্রতি রাতে কোনও না কোনও পুরুষের শয্যা সঙ্গিনী করে পাঠিয়ে দেওয়া হয় তাকে।

Shares