আজ শুক্রবার , ৩রা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

রামচন্দ্রকুড়া উচ্চ বিদ্যালয়ে এস.এস.সি পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা রামচন্দ্রকুড়া উচ্চ বিদ্যালয়ে এস.এস.সি পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা রামচন্দ্রকুড়া উচ্চ বিদ্যালয়ে এস.এস.সি পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা বাউফলে জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস পালিত হালুয়াঘাটে ঐতিহাসিক তেলিখালী যুদ্ধ দিবস উদযাপন বাউফলে যুবদলের ৪৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পলিত নালিতাবাড়ীতে শিক্ষক নেতার উপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন নালিতাবাড়ীতে শিক্ষক নেতার উপর সন্ত্রাসী হামলার বিচারের দাবীতে আজ মানববন্ধন হালুয়াঘাটের শিমুলকুচি গ্রামে কামাল’র কুলখানি অনুষ্ঠিত হালুয়াঘাটে বৃদ্ধকে নির্যাতনের ঘটনায় চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ হালুয়াঘাটের ট্রলি উল্টে দুই বন্দর শ্রমিকের মৃত্যু, আহত ৬ মাছ ধরার জালে ঢিল ছোড়ায় খুন হন শিশু শিক্ষার্থী সুমন হালুয়াঘাটে ১ম শ্রেণীর শিক্ষার্থীকে কুপিয়ে খুন এমপি’র কাছে নালিশ করায় বৃদ্ধকে পিটিয়েছে চেয়ারম্যান হালুয়াঘাটে প্রতারিত শত শত কৃষক

অস্ট্রেলিয়ায় প্রথম মুসলিম নারী সিনেটর

প্রকাশিতঃ ৮:৪৭ অপরাহ্ণ | আগস্ট ১৫, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২৮৯ বার

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক: অস্ট্রেলিয়ায় চলমান বর্ণবাদ বিতর্কের মধ্যেই দেশটির ইতিহাসে প্রথমবারের মতো মুসলিম নারী সিনেটর হিসেবে যোগ দিয়েছেন মেহরিন ফারুকি। তার জন্ম পাকিস্তানে।

সিনেটর হওয়ার পর এক গনমাধ্যমকে তিনি বলেন, “অস্ট্রেলিয়ার ভবিষ্যৎ আমাদের এ বৈচিত্র্যর জন্য আরো শক্তিশালী হবে।”

বুধবার (১৫ আগস্ট) নিউ সাউথ ওয়েলসের গ্রিনস পার্টির এমপি হিসাবে সিনেটের একটি শূন্য আসনে নিযুক্ত হয়েছেন তিনি।

অস্ট্রেলিয়ার আরেক নতুন সিনেটর ফ্রেশার অ্যানিং অভিবাসন নিয়ে ‘চূড়ান্ত একটি সমাধানে’ আসার আহ্বান জানিয়ে বক্তব্য দিয়ে নিন্দার ঝড়ের মুখে পড়ার সময়েই মেহরিন ফারুকি মুসলিম নারী সিনেটর হলেন।

আগামী সপ্তাহেই শপথ নেবেন ফারুকি। তিনি সিনেটর ফ্রেশার অ্যানিংয়ের একজন ঘোর সমালোচক।

মঙ্গলবার পার্লামেন্টে অ্যানিংয়ের প্রথম বক্তব্যের সমালোচনায় ফারুকি বলেন, “ঘৃণা আর জাতিবিদ্বেষ উগরে দিয়ে তিনি লাখো অস্ট্রেলিয়র মুখে থুতু ছিটিয়েছেন।”

তিনি আরো বলেন, “আমি একজন মুসলিম অভিবাসী। আমি সিনেটর হচ্ছি। ফ্রেশার ম্যানিং তো এখানে কাঁচকলাটাও করতে পারবেন না।”

১৯৯২ সালে পরিবারের সঙ্গে পাকিস্তান থেকে অস্ট্রেলিয়ায় এসেছিলেন ফারুকি।

২০১৩ সালে রাজ্য পার্লামেন্ট নির্বাচনে অংশ নিয়ে তিনি প্রথম একজন মুসলিম নারী হিসাবে দেশটির রাজনৈতিক অঙ্গনে পদার্পন করেন।

সূত্র- বিবিসি।

Shares