আজ বৃহস্পতিবার , ২৩শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

নালিতাবাড়ী উপজেলা নির্বাচনে মোশারফ, ফরিদ, আশুরা বিজয়ী গরীবের আশার বাতিঘর হাজী মোশারফ হালুয়াঘাটে পল্লী বিদ্যুতের খুঁটি পুঁততে গিয়ে মৃত্যু-১, আহত-১ জাতীয় ভাবে”স্বপ্নজয়ী মা” নির্বাচিত হলেন জামালপুর জেলার দেওয়ানগঞ্জের অবিরণ নেছা ৬১০৮ ভোটের ব্যবধানে হামিদ বিজয়ী। শেখ রাসেল ও মনোয়ারা ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত হালুয়াঘাট উপজেলা পরিষদ নির্বাচনঃ প্রবীণে প্রবীণে লড়াই এম্বুলেন্সে করে মাদক পাচারকালে ২৪০ বোতল ভারতীয় মদসহ একজন আটক এমপি মাহমুদুল হক সায়েমকে সি.আই.পি শামিমের সংবর্ধনা হালুয়াঘাটে ঈদে বাড়ি ফেরার পথে লাশ হল স্বামীসহ অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী হালুয়াঘাটের স্থলবন্দর দিয়ে ২৭টি পণ্যের আমদানী রপ্তানীর পরিকল্পনা-এমপি সায়েম হালুয়াঘাটে ২৭ হাজার দুস্থ অসহায় পাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার ১৩ বছর পর পদত্যাগ করলেন ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর হালুয়াঘাটে ফেইসবুক গ্রুপে কোরআন তেলাওয়াত ও ইসলামী সংগীত প্রতিযোগিতা। পুরস্কার বিতরণ ‘কৃষ্ণনগরের কৃষ্ণকেশীর ‘বেহিসেবি রঙ.. হিমাদ্রিশেখর সরকার হালুয়াঘাট থেকে ফুলপুর পর্যন্ত চার লেনের রাস্তা নির্মাণসহ সড়ানো হচ্ছে অস্থায়ী বাস কাউন্টার

গাজীপুরে স্ত্রী-কন্যাকে হত্যার পর স্বামীর আত্মহত্যা

প্রকাশিতঃ ১০:৩১ অপরাহ্ণ | জুলাই ২০, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ৪০৮ বার

অনলাইন ডেস্কঃ গাজীপুরে মেডিকেল কলেজছাত্রী মেয়ে ও তার মায়ের গলাকাটা মরদেহ ও ছাত্রীর বাবার ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। তাদের তিনজনের মৃত্যু নিয়ে এলাকায় রহস্য ও চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। এলাকাবাসী ও নিহতদের স্বজনদের ধারণা, এটি একটি পরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড। পুলিশ বলছে, তদন্ত না করে এ বিষয়ে স্পষ্ট কোনো ধারণা দেয়া যাচ্ছে না। নিহতরা হলেন, সিটি করপোরেশনের হায়দারাবাদ এলাকার আবুল হাশেমের ছেলে কামাল হোসেন (৪০), তার স্ত্রী নাজমা বেগম (৩৫) ও তাদের একমাত্র মেয়ে উত্তরা বাংলাদেশ মেডিকেল কলেজের ১ম বর্ষের ছাত্রী সানজিদা কামাল ওরফে রিমি (১৮)। পুলিশ তাদের মরদেহ উদ্ধার করে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমেদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

একই পরিবারের তিনজন সদস্য নিহত হওয়ার পর ওই পরিবারের আর কোনো সদস্য বাকি রইলো না।

নগরের পুবাইল পুলিশ ফাঁড়ির এস আই শফিকুল আলম জানান, হায়দরাবাদে তিনজনের নিহতের খবর পেয়ে তারা দুপুর দুটার দিকে ঘটনাস্থলে গিয়ে তিনটি মরদেহ সুরতহাল রিপোর্ট তৈরির পর উদ্ধার করে অধিকতর তদন্তে নিহতের বিষয়টি স্পষ্ট হবে বলে জানান উদ্ধারকারী পুলিশ কর্মকর্তা। মা-মেয়ের ঘটনা হত্যাজনিত হলেও কামাল হোসেনের মৃত্যু আত্মহত্যাজনিত নাকি হত্যাজনিত তা তদন্ত ছাড়া বলা যাচ্ছে না।

Shares