আজ সোমবার , ৮ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ২৪শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

ইকোপার্কে বেড়াতে গিয়ে খালু কর্তৃক ভাগ্নী ধর্ষণের শিকার শ্রীবর্দীতে পানিতে ডুবে প্রতিবন্ধী শিশুর মৃত্যু মেয়ের খুনের বিচার চাইলেন বাবা বাউফলে ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিল নালিতাবাড়ীতে বন্য হাতির আক্রমণে কৃষকের মৃত্যু দাশপাড়া ইউনিয়ন বিএনপি’র সভাপতি আজম, সম্পাদক মজিবর নালিতাবাড়ীর নৃতাত্ত্বিক জনগোষ্ঠীর নিখোঁজ শিক্ষার্থী উদ্ধার নালিতাবাড়ীতে গণহত্যা দিবস পালিত দলিল প্রতি অতিরিক্ত ফি ১০ হাজার টাকা। প্রতিবাদে ধোবাউড়ায় সংবাদ সম্মেলন রামচন্দ্রকুড়ায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর প্রচারণায় বাঁধা: সংঘর্ষ, গাড়ি ভাংচুর, আহত হালুয়াঘাটে গাছের সাথে শত্রুতা হালুয়াঘাটে আরও ২৯ জন ভূমিহীনকে জমিসহ ঘর প্রদান ময়মনসিংহে গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যা, স্বামী আটক। প্রধান মন্ত্রীর উপহার চান ভাগ্য বিড়ম্বিত বিধবা রেনুবালা! ২৫ বৎসরেও হয়নি বিলকিছের প্রতিবন্ধী ভাতা

এইচএসসিতে ফেল করায় ৩ শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা

প্রকাশিতঃ ৭:১১ অপরাহ্ণ | জুলাই ২০, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২৮৬ বার

অনলাইন ডেস্কঃ এবারের এইচএসসি পরীক্ষায় অকৃতকার্য হওয়ায় মানিকগঞ্জ, খুলনা ও পঞ্চগড় জেলায় তিন কলেজছাত্রী আত্মহত্যা করেছেন। বৃহস্পতিবার বিকাল থেকে শুক্রবার সকালের মধ্যে এসব ঘটনা ঘটে।
শুক্রবার সকালে মানিকগঞ্জের ঘিওর উপজেলার কুস্তা গ্রামে এইচএসসি পরীক্ষায় অকৃতকার্য হওয়ায় মিতু আক্তার নামে এক শিক্ষার্থী ইঁদুর মারার বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করেন। মিতু ওই গ্রামের কৃষক ও শস্য বেপারী মোসাদ্দেক হোসেনের মেয়ে। পরিবারের লোকজনের বরাত দিয়ে ঘিওর থানার ওসি রবিউল ইসলাম জানান, মিতু আক্তার এ বছর  ঘিওর সরকারী কলেজ থেকে এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছিল।  বৃহস্পতিবার পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ হলে সে  অকৃতকার্য হয়। এ কথা শোনার পর মিতু সারারাত না খেয়ে কান্নাকাটি করে। শুক্রবার সকালে বাড়ির লোকজনের অলক্ষ্যে মিতু ঘরে থাকা ইঁদুর মারার বিষ পান করে। পরে পরিবারের লোকজন বিষয়টি টের পেয়ে দ্রুত ঘিওর সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনতে বলেন। ঢাকায় আনার পথে মিতুর মৃত্যু হয়। সংবাদ পেয়ে নিহতের বাড়িতে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।
এদিকে বৃহস্পতিবার রাতে খুলনা মহানগরীর দৌলতপুর মহসিন মহিলা কলেজের ছাত্রী ঐশর্য্য রায় (১৮) গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেন। সে দৌলতপুর মানিকতলা সিএসডি গোডাউন এলাকার বাবুল রায়ের মেয়ে। দৌলতপুর থানার ওসি কাজী মোস্তাক আহমেদ জানান, পরীক্ষায় অকৃতকার্য হওয়ায় বৃহস্পতিবার রাতে ঐশর্য্য রায় ঘরের সিলিংয়ের সাথে ওড়না পেঁচিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন। পরে পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে। অন্যদিকে পঞ্চগড়ে এইচএসসি পরীক্ষায় অকৃতকার্য হওয়ায় শাবনুর আক্তার (১৯) নামে এক পরীক্ষার্থী আত্মহত্যা করেছেন। সে পূর্ব জালাসী এলাকার রফিকুল ইসলামের মেয়ে। পঞ্চগড় থানার ওসি রবিউল হাসান সরকার জানান, পঞ্চগড় সরকারি মহিলা কলেজ থেকে এইচএসসি পরীক্ষা দিয়ে শাবনুর দ্বিতীয়বারের মতো অকৃতকার্য হন।পরে শাবনুর নিজ ঘরের আড়ার সাথে ওড়না দিয়ে ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেন। পরিবারের লোকজন তাকে উদ্ধার করে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। পরে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. তৌহিদ হাসান তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

Shares