আজ বুধবার , ২৭শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |

শিরোনাম

নালিতাবাড়ীতে শিক্ষক নেতার উপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন নালিতাবাড়ীতে শিক্ষক নেতার উপর সন্ত্রাসী হামলার বিচারের দাবীতে আজ মানববন্ধন হালুয়াঘাটের শিমুলকুচি গ্রামে কামাল’র কুলখানি অনুষ্ঠিত হালুয়াঘাটে বৃদ্ধকে নির্যাতনের ঘটনায় চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ হালুয়াঘাটের ট্রলি উল্টে দুই বন্দর শ্রমিকের মৃত্যু, আহত ৬ মাছ ধরার জালে ঢিল ছোড়ায় খুন হন শিশু শিক্ষার্থী সুমন হালুয়াঘাটে ১ম শ্রেণীর শিক্ষার্থীকে কুপিয়ে খুন এমপি’র কাছে নালিশ করায় বৃদ্ধকে পিটিয়েছে চেয়ারম্যান হালুয়াঘাটে প্রতারিত শত শত কৃষক বাউফলে মাছের পোনা অবমুক্তকরণ বাউফল উপজেলা ও পৌর সেচ্ছাসেবক দলের আহব্বায়ক কমিটি ঘোষণা বাউফলে ইউএনও’র বিদায়ী সংবর্ধনা নালিতাবাড়ীতে জেলা শিক্ষা অফিসারের বিদ্যালয় পরিদর্শন বাউফলে বিএনপি’র ৪৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত বাউফলে ছেলের বিচার চেয়ে বাবা মায়ের সাংবাদিক সম্মেলন

লন্ডনে লাখো মানুষের ট্রাম্প বিরোধী বিক্ষোভ

প্রকাশিতঃ ১:২৪ অপরাহ্ণ | জুলাই ১৪, ২০১৮ । এই নিউজটি পড়া হয়েছেঃ ২১৬ বার

ডেস্ক রিপোর্টঃ যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের বৃটেন ভ্রমণের প্রতিবাদে লন্ডনের রাস্তায় বিক্ষোভ করেছে কমপক্ষে আড়াই লাখ মানুষ। এতে যোগ দিয়েছিলেন বিরোধী দলনেতা জেরেমি করবিনও। যেখানে ডনাল্ড ট্রাম্পকে লাল গালিচা অভ্যর্থনা দিয়েছেন বৃটেনের প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মে সেখানে লাখ লাখ মানুষ তাকে বিক্ষুব্ধ প্রতিবাদের মাধ্যমে স্বাগতম জানিয়েছে। এ খবর দিয়েছে অনলাইন আল জাজিরা।
শুক্রবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের ৪ দিনব্যাপি বৃটেন সফরের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ শুরু করে আন্দোলনকারীরা। ‘স্টপ ট্রাম্প’ নামক একটি সংগঠন এর আয়োজন করে।

বিক্ষোভকারীরা মধ্য লন্ডনের রাস্তায় দিনভর প্ল্যাকার্ড, ব্যানার নিয়ে বিক্ষোভ করেন। তারা স্লোগানে স্লোগানে ডনাল্ড ট্রাম্পকে ‘বিশ্বাসঘাতক হিংসুক স্বৈরশাসক’ বলে অভিহিত করেন। মিছিলে ‘ঈশ্বর, রানীকে ডনাল্ড ট্রাম্পের হাত থেকে রক্ষা কর’ লেখা প্ল্যাকার্ড দেখা যায়। সাবেক মার্কিন নৌবাহিনীর নারী সেনা ট্রিক্সি মনক্স বিক্ষোভে অংশ নিয়েছিলেন। তিনি বলেন, ২০১৬ সালে ডনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হওয়ার পর তিনি বৃটেনে চলে আসেন। এখন বৃটেনে তাদের শান্তি বিনষ্ট করতে এখানে চলে এসেছেন ট্রাম্প। একইসঙ্গে তিনি ট্রাম্পের ‘জিরো টলারেন্স’ অভিবাসন নীতিসহ বিভিন্ন কার্যক্রমের সমালোচনা করেন। ৩৯ বছর বয়সী এই নারী বলেন, ‘ডনাল্ড ট্রাম্প বিশ্বের দেশগুলোর মধ্যে বিভক্তি সৃষ্টি করছেন। তিনি আমাদের মিত্রদের আক্রমণ করছেন আর পুতিন যা যা চাইছেন সব দিয়ে দিচ্ছেন’। টম আগার নামের এক বিক্ষোভকারী বলেন, শুধু জাতীয়তার ভিত্তিকে নির্দিষ্ট কিছু দেশের নাগরিকদের নিষিদ্ধ করার মাধ্যমে ট্রাম্প বর্ণবাদীর পরিচয় দিয়েছে।
এদিকে, বৃটিশ প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মে চেকারসে তার সরকারী বাসভবনে ডনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে বৈঠক করেন। সেখানে তিনি যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে তার দেশের ঐতিহাসিক বন্ধুত্বকে বিশেষভাবে পুনর্ব্যক্ত করেন। কিন্তু বিক্ষোভকারিরা এর প্রতিক্রিয়ায় জানান, কোনভাবেই ডনাল্ড ট্রাম্পকে বিশ্বাস করা যায় না। তিনি নিজের ইচ্ছেমতো সব কিছু করতে পারেন। তিনি শুধু যুক্তরাষ্ট্র নয় পৃথিবীর যে কোনো দেশের জন্য হুমকি। লাল গালিচা অভ্যর্থনা দেয়ায় তেরেসা মে’রও সমালোচনা করেন তারা।

Shares